রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১২ ফাল্গুন ১৪৩০, ১৪ শাবান সানি ১৪৪৫ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

জাবির দুই ছাত্রীর বহিষ্কারাদেশ হাইকোর্টে অবৈধ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৭ নভেম্বর, ২০২২, ১২:০০ এএম

জাহাঙ্গীর নগর বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই ছাত্রীর বহিষ্কারাদেশ অবৈধ ঘোষণা করেছেন হাইকোর্ট। এক ছাত্রকে থাপ্পড় মারার ঘটনায় কোনো প্রকার কারণদর্শানো ছাড়াই বিভিন্ন মেয়াদে বহিষ্কার করা হয়েছিল দুই ছাত্রীকে। তারা হলেন, নৃবিজ্ঞান বিভাগের ৪৬ ব্যাচের সুমাইয়া বিনতে একরাম ও আনিকা তাবাসসুম।
ইতিপূর্বে জারিকৃত রুলের চূড়ান্ত শুনানি শেষে গতকাল বুধবার বিচারপতি জাফর আহমেদ এবং বিচারপতি মো. আখতারুজ্জামানের ডিভিশন বেঞ্চ এ রায় দেন। দুই শিক্ষার্থীর পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন ও অ্যাডভোকেট এস এম আরিফুল ইসলাম। বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট নাহিদ মাহতাব।
এর আগে গত ২৬ জানুয়ারি দেয়া বহিষ্কারাদেশের ভাষ্যমতে, ২৪ জানুয়ারি রাত সাড়ে ৮টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বটতলা এলাকায় ‘সরকার ও রাজনীতি’ বিভাগের ৪৪তম ব্যাচের এক শিক্ষার্থীকে নৃ-বিজ্ঞান বিভাগের ৪৬তম ব্যাচের শিক্ষার্থী সুমাইয়া বিনতে একরাম থাপ্পড় মারা (শারীকিভাবে লাঞ্ছিত করা), অশ্লীল-অশ্রাব্য ভাষায় গালাগাল ও অসদাচরণের বিষয়টি প্রমাণিত হয়। এছাড়া নৃ-বিজ্ঞান বিভাগের ৪৬তম ব্যাচের শিক্ষার্থী আনিকা তাবাসসুম মীমের বিরুদ্ধেও অশ্লীল-অশ্রাব্য ভাষায় গালাগাল করা এবং অসদাচরণের বিষয়টি প্রমাণিত হয়েছে। প্রক্টোরিয়াল বডির প্রতিবেদন ও ২৫ জানুয়ারি অনুষ্ঠিত ডিসিপ্লিন বোর্ডের জরুরি সভার সুপারিশের পরিপ্রেক্ষিতে একইদিন সিন্ডিকেটের জরুরি ভার্চুয়াল সভায় দুই শিক্ষার্থীকে শাস্তি দেয়া হয়। এর মধ্যে সুমাইয়াকে ১ বছরের জন্য এবং আনিকা তাবাসসুমকে ৬ মাসের জন্য বহিষ্কার করা হয়। পরে এ সিদ্ধান্তের বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে দুই শিক্ষার্থী হাইকোর্টে রিট করেন। চলতি বছর ২০ ফেব্রুয়ারি বহিষ্কারাদেশের বৈধতা প্রশ্নে রুল জারি হয়। একই সঙ্গে তাদের নিয়মিত পড়াশুনা চালিয়ে নেয়া এবং পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ প্রদানের নির্দেশ দেয়া হয়। রুলের চূড়ান্ত শুনানি শেষে উপরোক্ত রায় দেন হাইকোর্ট।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন