ঢাকা রোববার, ১৭ জানুয়ারি ২০২১, ০৩ মাঘ ১৪২৭, ০২ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা ফেরাতে লড়াই অব্যাহত থাকবে : ডা. ফারুক আব্দুল্লাহ

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৬ অক্টোবর, ২০২০, ১১:১৯ এএম

ভারত অধিকৃত জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা পুনরুদ্ধারে লড়াই অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন সেখানকার সাবেক মুখ্যমন্ত্রী ও ন্যাশনাল কনফারেন্স প্রধান ডা. ফারুক আব্দুল্লাহ। গতকাল বৃহস্পতিবার (১৫ অক্টোবর) ফারুক আব্দুল্লাহর বাসায় এক বিশেষ বৈঠকে অংশ নেন সেখানকার রাজনীতিবিদরা। বৈঠক শেষে সন্ধ্যায় ওই মন্তব্য করেন সাবেক মুখ্যমন্ত্রী।

তিনি জানান, জম্মু-কাশ্মিরের সাংবিধানিক বিশেষ মর্যাদা ৩৭০ ধারা বাতিল নিয়ে তাদের মধ্যে আলোচনা হয়। গত বছরের ৫ আগস্ট ভারতের কেন্দ্রীয় সরকারের বাতিল করা বিশেষ মর্যাদা ফিরিয়ে আনার জন্য আন্দোলন চালিয়ে যেতে একমত হয়েছেন তারা।
অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ ওই বৈঠকে পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতি, পিপলস কনফারেন্সের চেয়ারম্যান সাজ্জাদ লোন, পিপলস মুভমেন্টের নেতা জাভেদ মীর, সিপিএম নেতা মুহাম্মাদ ইউসুফ তারিগামী প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

কমপক্ষে দুই ঘন্টা ধরে চলা ওই বৈঠকের পরে ডা. ফারুক আবদুল্লাহ বলেন, তাঁরা একটি জোট গঠন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন যার নাম হবে ‘পিপলস অ্যালায়েন্স ফর গুপকার ডিক্লারেশন’। এই জোট কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদা ফেরানোর চেষ্টা করবে। তিনি বলেন, জম্মু-কাশ্মীরের বিশেষ মর্যাদার জন্য আমাদের আন্দোলন অব্যাহত থাকবে। জম্মু-কাশ্মীরের সমস্যার সমাধান রাজনৈতিক। পরবর্তী রণকৌশলের জন্য আমরা ফের বৈঠক করব। ডা. ফারুক আবদুল্লাহ এক বিবৃতিতে বলেন, এতদিন ধরে মেহবুবাজিকে আটক রাখা অবৈধ ছিল। কারাগারে এখনও অনেক লোক রয়েছেন যাদের মুক্তি দেওয়া উচিত। আমরা চাই ভারত সরকার জম্মু-কাশ্মীরের জনগণকে তাদের বিশেষ মর্যাদা (৩৭০ ধারা) ফিরিয়ে দিক।

উল্লেখ্য, ২০১৯ সালের ৫ আগস্ট জম্মু-কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা সম্বলিত ৩৭০ ধারা বাতিল করে ভারতের নরেন্দ্র মোদির নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকার। এর পর যেন কোনো আন্দোলন না হতে পারে সেজন্য সেখান শত শত নেতাকর্মীকে বন্দি করা হয়। এর পর সম্প্রতি সাবেক তিন মুখ্যমন্ত্রীকে মুক্তি দেওয়া হয়। এর মধ্যে মেহবুবা মুফতি ১৪ মাস পর গত মঙ্গলবার মুক্তি পান। সূত্র : পার্সটুডে

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন