ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১, ০৮ আষাঢ় ১৪২৮, ১০ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ভ্রমণের তালিকা প্রকাশ ব্রিটেনের: বাংলাদেশ লাল তালিকায়

কূটনৈতিক সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ৮ মে, ২০২১, ২:২২ পিএম

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত গোটা বিশ্ব। এই ভাইরাসের তা-বে প্রতিদিন বিশ্বজুড়ে আক্রান্ত হচ্ছে লাখ লাখ মানুষ। দৈনিক মৃত্যু হচ্ছে হাজার হাজার মানুষের।
এমতাবস্থায় ভ্রমণের অনুমতিপ্রাপ্ত দেশের তালিকা প্রকাশ করল ব্রিটেন। শুক্রবার ১২টি দেশ ও অঞ্চলের ‘সবুজ তালিকা’ প্রকাশ করেছে ব্রিটিশ সরকার। শিগগিরই এসব দেশ ও অঞ্চলে বিনাবাধায় ভ্রমণে যেতে পারবেন যুক্তরাজ্যের অধিবাসীরা।
করোনাভাইরাস সংক্রমণের হার ও ঝুঁকি বিবেচনায় বিভিন্ন দেশকে ‘ট্রাফিক লাইট’ ব্যবস্থায় তিনটি ক্যাটাগরিতে তালিকাভুক্ত করেছে যুক্তরাজ্য। এর মধ্যে সবুজ তালিকায় থাকা দেশে বিনাবাধায় ভ্রমণ করা যাবে। আম্বার (হলুদাভ রঙ) তালিকাভুক্ত দেশে বাড়তি সতর্কতা মানতে হবে এবং লাল তালিকায় থাকা দেশগুলো ভ্রমণে যাওয়া প্রায় নিষিদ্ধ।
শুক্রবার বহুল প্রত্যাশিত সেই সবুজ তালিকা প্রকাশ করেছে ব্রিটিশ প্রশাসন। এ তালিকায় রয়েছে পর্তুগাল, অস্ট্রেলিয়া, নিউজিল্যান্ড, সিঙ্গাপুর, ব্রুনেই, আইসল্যান্ড, ফারো দ্বীপপুঞ্জ, জিব্রাল্টার, ফকল্যান্ড দ্বীপপুঞ্জ, সাউথ জর্জিয়া ও সাউথ স্যান্ডউইচ দ্বীপপুঞ্জ; সেন্ট হেলেনা, অ্যাসেনশন এবং ত্রিস্তান দা কুনহা, আর ইসরায়েল।
এদিকে ফ্রান্স, গ্রিস, স্পেন ও ইতালিকে আম্বার তালিকাভুক্ত ঘোষণা করেছে যুক্তরাজ্য। অর্থাৎ, এসব দেশ ভ্রমণ করে ফিরলে অন্তত ১০ দিন কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে।
একই সঙ্গে তুরস্ক, মালদ্বীপ ও নেপালকে আম্বার থেকে লাল তালিকায় পাঠিয়েছে ব্রিটিশ কর্তৃপক্ষ। অর্থাৎ এই দেশগুলো ভ্রমণে একপ্রকার নিষেধাজ্ঞাই কার্যকর হচ্ছে।
বাংলাদেশসহ যুক্তরাজ্যের লাল তালিকায় আগে থেকেই রয়েছে ভারত, দক্ষিণ আফ্রিকা, সংযুক্ত আরব আমিরাতের মতো দেশগুলোর নাম।

আগামী ১৭ মে থেকে কার্যকর হচ্ছে নতুন ভ্রমণ নির্দেশনা। অর্থাৎ সেদিন থেকে সবুজ তালিকায় থাকা দেশগুলো ভ্রমণে যাওয়ার সুযোগ পাবেন ব্রিটিশরা। সূত্র: বিবিসি, সিএনএন

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন