সোমবার, ০৮ আগস্ট ২০২২, ২৪ শ্রাবণ ১৪২৯, ০৯ মুহাররম ১৪৪৪ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

বাংলাদেশের জন্য দুঃখজনক, লজ্জা ভারতের জন্য

সীমান্তে হত্যাকাণ্ড সম্পর্কে পররাষ্ট্রমন্ত্রী

গোপালগঞ্জ জেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ২১ নভেম্বর, ২০২১, ১২:০৮ এএম

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন বলেছেন, পৃথিবীর সব দেশ এক বাক্যে বলেছে রোহিঙ্গারা যাতে তাদের দেশে ফেরত যায়। ইতোমধ্যে রেজুলেশন পাশ হয়েছে। আমরা যেটা এতোদিন ধরে প্রচেষ্টা চালিয়েছিলাম। তিনি বলেন, আমরা বিশ্বাস করি এতে করে মিয়ানমারের ওপর চাপ পড়বে রোহিঙ্গাদের ফেরত নিতে। এর আগে মিয়ানমার রোহিঙ্গাদের তাদের দেশে ফিরিয়ে নেয়ার কথা বললেও তারা তাদের কথা রাখেনি।

গতকাল শনিবার দুপুরে গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে বঙ্গবন্ধুর সামাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। তিনি আরো বলেন, ভারত ও বাংলাদেশ সরকার চায় সীমান্তে একটি লোকও মারা না যাক। এ নিয়ে দুই সরকারের বিভিন্ন পর্যায়ে আলোচনা ও বৈঠক হয়েছে যাতে কেউই মারা না যায়। এতো কিছুর পরও সীমান্তে হত্যাকাণ্ড ঘটছে। এটি বাংলাদেশের জন্য দুঃখজনক ও ভারতের জন্য লজ্জাজনক।

এর আগে টুঙ্গিপাড়ায় বঙ্গবন্ধুর সমাধিতে ফুল দিয়ে সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন। পরে বঙ্গবন্ধু ও ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট বঙ্গবন্ধু পরিবারের শহীদ সদস্যদের রুহের মাগফেরাত কামনা করে ফাতেহা পাঠ ও বিশেষ মোনাজাতে অংশ নেন। এসময় সিলেট মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা মাসুক উদ্দিন আহম্মেদ, সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক মো. জাকির হোসেনসহ টুঙ্গিপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

উল্লেখ্য, গত ৩ নভেম্বর সিলেটের কানাইঘাট সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে ২ বাংলাদেশি নিহত হন। সেদিন দুপুরের দিকে উপজেলার ডোনা সীমান্তের ৩১ নম্বর সীমান্ত পিলারের কাছে এ ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন কানাইঘাটের লক্ষ্মীপ্রসাদ গ্রামের নকিব আলীর ছেলে আসকর আলী ওরফে আছই (২৫) ও একই গ্রামের হান্নান মিয়ার ছেলে আরিফ মিয়া (২২)।

এর এক সপ্তাহ পর গত ১১ নভেম্বর লালমনিরহাট কালীগঞ্জ উপজেলার বুড়িরহাট সীমান্তের কাছে বিএসএফের গুলিতে ফের ২ বাংলাদেশি নিহত হন। নিহতরা হলেন- উপজেলার গোড়ল ইউনিয়নের মালগাড়া গ্রামের মোসলেম উদ্দিনের ছেলে ইদ্রিস আলী (৪০) ও একই গ্রামের আলতাফ হোসেনের ছেলে আসাদুজ্জামান ভাসানি (৪৫)।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন