ঢাকা, বুধবার ২৪ জুলাই ২০১৯, ০৯ শ্রাবণ ১৪২৬, ২০ যিলক্বদ ১৪৪০ হিজরী।

অভ্যন্তরীণ

দৌলতপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধে সন্ত্রাসী হামলা আহত ৫

প্রকাশের সময় : ১৭ এপ্রিল, ২০১৬, ১২:০০ এএম

দৌলতপুর (কুষ্টিয়া) উপজেলা সংবাদদাতা
কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে সন্ত্রাসী হামলায় এক বৃদ্ধসহ অন্তত ৫ জন আহত হয়েছে। শুক্রবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার মরিচা ইউনিয়নের নতুনচর এলাকায় সন্ত্রাসী হামলার এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, জমি সংক্রান্ত পূর্ব বিরোধের জের ধরে চরাঞ্চলের দুর্ধর্ষ সন্ত্রাসী রুহুলের নেতৃত্বে এনামুল, মান্নান, হান্নান, সানাউল ও আসাদসহ ১০-১২ জন সশস্ত্র সন্ত্রাসী শিতল ম-লের বাড়িতে হামলা চালায়। এ সময় সন্ত্রাসীরা শিতল ম-লকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধারাল অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে জখম করে। শিতল ম-লের চিৎকারে প্রতিবেশী লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে আসলে সন্ত্রাসীরা তাদেরকেও কুপিয়ে জখম করে পরপর ৪টি বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে পালিয়ে যায়। সন্ত্রাসীদের হামলায় শিতল ম-ল (৭২), মিরু (৩৫), কটা (৩৭) ও ঝন্টু (৩২)সহ অন্তত ৫ জন আহত হয়। আতদের রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও দৌলতপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এ ঘটনায় দৌলতপুর থানায় অভিযোগ হয়েছে। তবে হামলার সাথে জড়িত কেউ গ্রেফতার হয়নি। হামলার খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে বিস্ফোরিত বোমার আলামত সংগ্রহ করেছে।
নগদ টাকাসহ মালামাল লুট
কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে বিশ্ববাঁধ এলাকায় মনি দোকানদার নামে এক ব্যবসায়ীর দোকান লুট করেছে একই এলাকার চিহ্নিত দুর্বৃত্তরা। শুক্রবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে অস্ত্রের মুখে দোকানদার মনিকে জিম্মি করে দুর্বৃত্তরা মুদি দোকানে থাকা ব্যবসার ৫৫ হাজার নগদ টাকাসহ প্রায় লক্ষাধিক টাকার দোকানের মালমাল লুট করেছে। দোকানের মালিক মনিরুল ইমলাম মনি ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, ইসলামপুর এলাকার ইব্রাহিমের ছেলে সেন্টুর (৩৭) নেতৃত্বে পলানের ছেলে রতন (৩০), মোহন (২৮), স্বপন (২৫) ও সাইফুল (২৩) সংঘবদ্ধ হয়ে মুনা দোকানদারের ছেলে মনি দোকানদারে মুদি দোকানে হানা দিয়ে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ টাকা ও দোকানের বিভিন্ন প্রকার মালামাল লুট করে। এ সময় মনি দোকানদার হামলকারীদের বাধা দিতে গেলে সেন্টু তাকে অস্ত্র দেখিয়ে হত্যার ভয় দেখায়। দোকান লুটের খবর পেয়ে মথুরাপুর ক্যাম্পের ইনচার্জ শরিফুল ঘটনাস্থলে গিয়ে দোকান লুটের খোঁজখবর নিয়েছেন। এ ঘটনায় দোকানের মালিক মনি দৌলতপুর থানায় অভিযোগ দিয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন