ঢাকা, বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯, ০৬ ভাদ্র ১৪২৬, ১৯ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

আন্তর্জাতিক সংবাদ

ঘরে-বাইরে প্রশংসায় ভাসছেন ইমরান খান!

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩ মার্চ, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

কাশ্মীরের পুলওয়ামায় হামলায় কেন্দ্র করে ভারত পাকিস্তানের মধ্যে বর্তমানে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। তবে এমন পরিস্থিতিতেও ভারতকে একাধিকবার শান্তির বার্তা দিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ‘হিরো’ খেতাব পাচ্ছেন ইমরান খান। ভারতীয় পাইলটকে ছেড়ে দেয়ার ব্যাপারে পাকিস্তানের সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানিয়েছে জাতিসংঘ। বৃহস্পতিবার পাকিস্তানের পার্লামেন্টের যৌথ অধিবেশনে ইমরান খান বলেন, পাকিস্তান কোন ধরনের অস্থিরতা চায় না শান্তি চায়। তারই প্রেক্ষিতে শান্তির বার্তা দিতে ও ভারতের সঙ্গে আলোচনার ক্ষেত্র প্রস্তুতে পাকিস্তানে আটক ভারতীয় পাইলট উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানকে ছেড়ে দেয়ার ঘোষণা দেন ইমরান খান। ইমরান খানের এমন ঘোষণা ও পদক্ষেপে দেশে ও দেশের বাইরে প্রশংসিত হচ্ছেন। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে চলছে ইমরানের বন্দনা।
ডনের খবরে বলা হয়েছে, ইমরানের এমন পদক্ষেপ নেওয়ার কারণে অনেকে তাকে সত্যিকারের রাষ্ট্রনায়ক হিসেবে অভিহিত করছে।
সংবাদ মাধ্যম এএনআই জানায়, ইমরান খানের এমন সিদ্ধান্তে অনেক খুশি ভারতের পাঞ্জাব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং। অমরিন্দর ইমরানের এমন পদক্ষেপকে বন্ধুত্বের পথের একটি ধাপ হিসেবে উল্লেখ করেন। ভারতের সাবেক ক্রিকেট তারকা ও রাজনীতিবিদ নভোজিৎ সিং সিধু টুইটারে ইমরানের প্রশংসা করে এমন পদক্ষেপকে মহানুভবতা বলে অভিহিত করেন। এছাড়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে ইমরানের ব্যাপক প্রশংসা চলছে। কেউ লিখেছেন, ইমরানের এমন সিদ্ধান্ত সত্যই দেশ দু’টির জন্য ভালো। আবার কেউ লিখেছেন, যুদ্ধ যে কারো মঙ্গল বয়ে আনতে পারে না তাই ইমরান খানের এমন পদক্ষেপ প্রশংসার দাবিদার।
অন্যদিকে পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী জুলফিকার আলী ভুট্টোর নাতনি ফাতিমা ভুট্টো টুইটারে লিখেছেন, ইমরানের এই পদক্ষেপ সাহসী ও মানবিক। পাকিস্তানের জনপ্রিয় শিল্পী ফখরে আলমও ইমরান খানের প্রশংসায় পঞ্চমুখ। তিনি লিখেছেন, সামরিক, রাজনৈতিক, কূটনৈতিক, নৈতিকতা ও রাষ্ট্রপরিচালনা সব দিক দিয়েই পাকিস্তান জয়ী হল।
ইমরান খানকে নোবেল দিতে পাকিস্তানিদের ‘হ্যাশট্যাগ’ ঝড়
যুদ্ধ নয় শান্তি চায় পাকিস্তান। এমন বার্তা দিয়ে আটক ভারতীয় পাইলটকে ছেড়ে দেয়ার ঘোষণা দেয় পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান। বৃহস্পতিবারের এমন ঘোষণার পর ইমরানের প্রশংসায় পঞ্চমুখ পাকিস্তানিরা। সেইসঙ্গে এবার ইমরানকে শান্তিতে যেন নোবেল পুরষ্কার দেয়া হয় তার দাবি তুলেছেন পাকিস্তানের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীরা।
সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলোতে হ্যাশট্যাগ দিয়ে ‘নোবেল পিসপ্রাইজ ফর ইমরান খান’ দিয়ে পোস্ট করছেন পাকিস্তানিরা। ডনের খবরে বলা হয়েছে, পাকিস্তানের সামাজিক মাধ্যমগুলোতে এখন ইমরান খানকে নোবেল পুরষ্কার দেয়ার একপ্রকার হ্যাশট্যাগ ঝড় চলছে। অনেকে লিখেছেন, পাকিস্তান একজন সত্যিকারের নেতাকে পেয়েছেন। তবে অনেকে ইমরানকে নোবেল দেয়ার যে হ্যাশ ট্যাগ দিচ্ছেন তার কড়া সমালোচনা করেছেন। টুইটারে কেউ লিখেছেন, আমি অনেক ভাগ্যবান যে আমি একজন পাকিস্তানি এবং ইমরান খান আমার প্রধানমন্ত্রী। তবে কেউ বলেছেন, পাকিস্তানিদের অনেকে বিশ্ব রাজনীতি এখনো বুঝে নাই।
কাশ্মীরের পুলওয়ামাতে ১৪ ফেব্রুয়ারি হামলাকে কেন্দ্র করে ভারত পাকিস্তানের মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে। এই হামলার জবাব দিতে পাকিস্তানের সীমানা ভেদ করে গত মঙ্গলবার বালাকোটে হামলা চালায় ভারতীয় সেনাবাহিনী। ভারতের দাবি হামলায় অন্তত ৩০০ জঙ্গি নিহত হয়েছে। তবে ভারতের এমন দাবি প্রত্যাখান করে পাকিস্তান।
নিয়ন্ত্রণরেখা লঙ্ঘনের দায়ে বুধবার ভারতীয় সীমানায় ঢুকে পড়ে পাকিস্তানের যুদ্ধবিমান। এদিনই ভারতের দুইটি বিমান ভূপাতিত করে পাকিস্তান, আটক করে এক ভারতীয় পাইলটকে। সূত্র : ডন, এএনআই, রেডিও পাকিস্তান।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (24)
ujjal kastigir ৩ মার্চ, ২০১৯, ৬:২১ পিএম says : 0
Real hero,,I respect you.
Total Reply(0)
মোঃ আরিফুল ইসলাম ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৩ এএম says : 0
ভারতের পাইলট কে ফিরিয়ে দিয়ে পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী প্রমান করলো ইসলাম মানবতার ধর্ম ইসলাম শান্তির ধর্ম। প্রকৃত মুসলমানরা শান্তির রাজনীতি করে, ধ্বংসের নয়। যা বিশ্ববাসীকে চোখে আংগুল দিয়ে প্রমাণ করেছেন ইমরান খান।❤
Total Reply(0)
Sanowar Hossain ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৪ এএম says : 0
সমস্ত ভারতীয়রা প্রশংসা করলেও কেনজানি বাংলাদেশি হিন্দুরা এতেই গালাগালি ও হাসাহাসি করছে। বাংলাদেশি হিন্দুরা বলছে মোদীর ভয়েই ইমরান খান অভিনন্দনকে ছেড়ে দিতে বাধ্য হয়েছে। তারা ৭১ সালে ৯৩ হাজার পাক সেনার মুক্তির কথাও তুলে ধরছে। তারা হয়ত জেনেভা কনভেনশ কি তা জানেও না। ছাগল দিয়ে যেমন হালচাষ হয় না তেমনি মূর্খ দিয়ে জ্ঞানের বিচার করা চলে না।
Total Reply(0)
তৃষ্ণার্ত হৃদয় ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৪ এএম says : 0
দাবি মোদের একটাই ইমরানের হাতে শান্তি নোবেল পুরস্কার দেখতে চাই
Total Reply(0)
Md Masum Feni ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৪ এএম says : 0
সম্ভবত পাকিস্তান পারমাণবিক বোমা সার্কাস দেখাতে বানায়নি! বানিয়েছে শুধুমাত্র, কেবলমাত্র ভারতীয়দের আপ্যায়ন করতেই!!
Total Reply(0)
Tarik Hayat ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৫ এএম says : 0
গরুর মাংস খাওয়ার অপরাধে ভারতে মুসলমান হত্যা,,,পাকিস্তানে শত্রু হাতে পাওয়ার পর ও তাকে ফিরিয়ে দেওয়া,,,,,হিন্দু বনাম মুসলিম,,, কমেন্ট রিডারকারী বিচার করবে
Total Reply(0)
মঈন ওজিল ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৫ এএম says : 0
#এমরান_খান নোবেল পাওয়ার দাবীদার ❤ পাকিস্তানে আটক ভারতীয় পাইলটের মা সন্তান ফেরত দেওয়ার ঘোষনার পর অনুভূতি ইমরান খাঁন পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী না হয়ে ভারতের প্রধান মন্ত্রী হলে,ভারতের কতোই না কল্যান হতো। ইমরান খাঁনের জন্য প্রাণ ভরে দোয়া করে বললেন মুসলিমরা এমনি হয় বুঝি..! প্রতিটি মায়ের কাছেই সন্তানের জীবনের চেয়ে বড় কিছুই হতে পারে না শুধু অভিনন্দনের মায়ের কাছেই না। সমগ্র ইন্ডিয়ান জওয়ানদের মায়ের কাছেই ইমরান খাঁন এখন সম্মানের পাত্র সন্তান তুল্য ছবিটাই তার প্রমাণ
Total Reply(0)
Jihadul Islam ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৫ এএম says : 0
পাকিস্তান প্রমাণ করলো মুসলমানরা হিরো। কট্টরপন্থী হিন্দু রাষ্ট্র ভারত ভিলেন ।
Total Reply(0)
Mohammad Bin Ayub Mazhari ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৬ এএম says : 0
আর এই হিন্দুরাই কত মুসলিম দের হত্যা করছে,, অথচ ইচ্ছা করলে ওকে তখনি হত্যা করতে পারতো, আমরা মুসলিম তা করিনি,
Total Reply(0)
J Ahmed ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৬ এএম says : 0
যুদ্ধ কোন সমাধান নয়।শান্তি হলো সমাধান। পাকিস্তান ও ভারতীয় অধিবাসীদের কে জানাই আলোচনার মাধ্যমে যার যার লক্ষ্যতে পৌঁছের চেষ্টা করুন। যারাই যুদ্ধ বন্দী হিসাবে কোন সেনা বা সাধারণ মানুষ বন্দী হবে তাদের প্রতি সদাচারণ ও সর্বোচ্চ সন্মান প্রদর্শন করার। তাতে পক্ষদ্বয়ের জন্য উত্তম প্রতিদান আসবেই আশাবাদ ইনশাআল্লাহ। ২০১৯....
Total Reply(0)
Kamal Chowdury ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৭ এএম says : 0
ইমরান খানের বুদ্ধিমত্তা মুদির সব প্লান ধ্বংস করে দিছে। হিন্দু মুসলিম যুদ্ধ খেলে মুদির ভোটে জেতার স্বপ্ন ইমরান খান এভাবে নষ্ট করে দিবে মুদি কল্পনাও করতে পারেনি, অধিকন্তু মুদি এখন নিজদেশে ভিলেনের চেয়ে ও বড় ভিলেন হিসাবে চিহ্নিত হলো। শয়তান যতই চাল চালুক, শেষে তার শয়তানি ধরা পরবেই।
Total Reply(0)
Alamgir Hussan Alam ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৭ এএম says : 0
আসলে ভারতের পাইলটকে ফিরত দেওয়ায় তার কোন লাভ হবেনা,বরং তার উপরে আরো নানা ধরনের সমস্যা সৃষ্টি করবে ভারত। তাকে তার জায়গায়ত দিবেইনা।
Total Reply(0)
Harun-ur Rashid ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৭ এএম says : 0
War is no solution. Thanks Pak primer for his act.
Total Reply(0)
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
ইমরান খান পাকিস্থানের ক্রিকেট অধিনায়ক থাকা কালিন ভারত পাকিস্থান ক্রিকেট খেলায় পাকিস্তানে জয়ের পাল্লা ভারিছিল। কারন তিনি পরিবেশ ও পরিস্থিতি খুব ভাল বুঝেন। সেই সাথে খেলয়ারদের উজ্জেবিত করতে পারতেন। তিনি দেশের জন্য রাজনীতি করবেন তা খেলোয়াড়ি জীবন থেকেই তার স্বপ্ন ছিল। দীর্ঘ ২০ বছর লড়াই কোরে তিনি আজ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী হয়েছেন। তিনি গড্ডালিকা প্রবাহে গাঁ ভাশিয়ে দেননা। তিনি মাথা ব্যাবহার করতে জানেন।
Total Reply(0)
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
এই যুদ্ধে নাটকীয়ভাবে পাকিস্থান জয়ী।
Total Reply(0)
Ashraf ২ মার্চ, ২০১৯, ১:২৮ এএম says : 0
ইমরান খানের সাহসিকতা ও মানবিকতার প্রশংসা করি, যে যুদ্ধ থেকে উন্নয়নকে গুরুত্ব দিয়ে দেখছে।
Total Reply(0)
Motawakkel Sharif ২ মার্চ, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
ভালো কাজ করলে সবাই বাহবা দেয় এটাই স্বাভাবিক। অবশ্যই জনাব ইমরান খান প্রশংসা পাওয়ার মত যোগ্য ব্যক্তি। স্যালুট জানাই তাকে।
Total Reply(0)
Musa Bappi ২ মার্চ, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
This is the difference between graduated Oxford university PM Imran khan and a tea seller PM modi
Total Reply(0)
Saiful Islam ২ মার্চ, ২০১৯, ১:৩০ এএম says : 0
It is very important to take political education to Imran Khan, the Indian provocative donor, including tea sales, Modi. Because before the Khan attack, the same talk is possible, through the dialogue, the Kashmir issue is possible as a solution.
Total Reply(0)
Zahurul islam polash ২ মার্চ, ২০১৯, ৩:২৬ এএম says : 0
অামরা চাই সারা বিশ্ব ভাবনাটা যেন ওনার মত ভাবে,তবেই সারা পৃথিবীতে শানতি বিরাজ করবে।
Total Reply(0)
kawser ২ মার্চ, ২০১৯, ৯:৫৪ এএম says : 0
valo ekta kaj koreche musolman hisabe take nobel dewa hpok
Total Reply(0)
Safiullah ২ মার্চ, ২০১৯, ১২:৩০ পিএম says : 0
Good & fine, selut for PM of Pak.
Total Reply(0)
মোঃ আব্দুল গনি ২ মার্চ, ২০১৯, ২:৪৬ পিএম says : 0
এখান থেকেই প্রমাণ হয়, ইসলামই একমাত্র শান্তির ধর্ম।
Total Reply(0)
Abdullah alamin ২ মার্চ, ২০১৯, ৮:৪৬ এএম says : 0
Imran Khan, you really are very great Great leaders of Pakistan and Muslims Peace ambassador
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন