ঢাকা, বুধবার, ২৩ জুন ২০২১, ০৯ আষাঢ় ১৪২৮, ১১ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

অবৈধ গর্ভপাত ঘটানোর অভিযোগে নারী আটক

মুচলেকা দিয়ে মুক্তি

শরণখোলা (বাগেরহাট) উপজেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ২৩ আগস্ট, ২০১৯, ১২:০৩ এএম

বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দালালী ও অবৈধ গর্ভপাত ঘটানোর অভিযোগে জোসনা বেগম নামের এক দালাল মহিলাকে আটকের পর মুসলেকা নিয়ে ছেড়ে দিয়েছে হাসপাতাল কতৃপক্ষ।

খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত ২০ আগস্ট সকালে উপজেলার খুড়িয়াখালী এলাকার রেজাউল হাওলাদারের জীবন সঙ্গীনি গর্ভবতী সাবিনা আক্তার শারীরিক পরীক্ষা জন্য হাসপাতালে আসে। এ সময় গেটে ওৎ পেতে থাকা জোসনা বেগম নামের এক মহিলা ডাক্তার সেজে ভাল চিকিৎসার জন্য ভুল বুঝিয়ে ওই গৃহবধূকে তার বাসায় নিয়ে বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষা শেষে পেটের বাচ্চা নষ্ট হয়েছে এবং তা বের করতে হবে বলে তাকে জানায়। পরে জোসনা তার গর্ভপাত ঘটায় বলে ভূক্তোভোগী সাবিনা জানায়। এতে তার রক্ত ক্ষরণ শুরু হয়ে সে অসুস্থ হয়ে পড়লে গত ২১ আগস্ট তাকে হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়। ঘটনায় অভিযুক্ত উত্তর কদমতলা এলাকার মিরাজুল ইসলামের স্ত্রী জোসনা বেগম এ ব্যাপারে কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।

এ ব্যাপারে শরণখোলা উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ও তার চিকিৎসক ডা. জামাল মিয়া শোভন জানান, সাবিনার চিকিৎসা চলছে তবে তার বাচ্চার তেমন কোন সমস্য ছিল না। তার অবৈধ গর্ভপাত ঘটিয়েছে জোসনা নামের দালাল ওই মহিলা। তিনি দীর্ঘদিন যাবত হসপাতালে আসা রোগীদের ভাগিয়ে নিয়ে অবৈধ গর্ভপাতসহ বিভিন্ন অপচিকিৎসা দিচ্ছেন বলে তিনি জানান। তবে ভাল হওয়ার শেষ সুযোগ হিসেবে তাকে এবারের মত মুসলেকা দিয়ে ছেড়ে দিয়েছি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন