ঢাকা, শুক্রবার , ০৬ ডিসেম্বর ২০১৯, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ০৮ রবিউস সানি ১৪৪১ হিজরী

সারা বাংলার খবর

খুলনায় আ’লীগ অফিসে বোমা বিস্ফোরণে আইএসের দায় স্বীকার

খুলনা ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ১ অক্টোবর, ২০১৯, ২:১২ পিএম

খুলনা নগরীর খানজাহান আলী থানা এলাকার ‘শিরোমণি আওয়ামী লীগ কার্যালয়’ বোমা বিস্ফোরণের ঘটনায় দায় স্বীকার করে বিবৃতি দিয়েছে আন্তর্জাতিক জঙ্গিগোষ্ঠী ইসলামিক স্টেট (আইএস)।

বিশ্বব্যাপী সন্ত্রাসী গোষ্ঠীগুলোর কার্যক্রম প্রচারকারী সংস্থা সাইট ইন্টেলিজেন্স সোমবার রাতে এক টুইটবার্তায় এ তথ্য জানিয়েছে।
এতে বলা হয়, দেশের তৃতীয় বৃহত্তম শহর খুলনায় আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে বোমা বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে আইএস, যা চলতি বছরে আইএসের ষষ্ঠ হামলা এবং ঢাকার বাইরে প্রথম আক্রমণ।
সোমবার সন্ধ্যার পর খুলনা মহানগরীর ৩৪ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে হামলার ঘটনা ঘটে। এতে কেউ হতাহত হয়নি। তবে আসবাবপত্রের ক্ষতি হয়েছে। বিস্ফোরণের পর পরই এলাকায় আতঙ্কের সৃষ্টি হয়।
খানজাহান আলী থানার ওসি মো. শফিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, কোনো হতাহত হয়নি। এখন পর্যন্ত কাউকে আটক করা যায়নি।
জানা যায়, সন্ধ্যায় আনুমানিক ৩০ বছরের এক যুবক আওয়ামী লীগের অফিসে ঢোকে। সে অফিসে থাকা সুমন নামে এক ছাত্রলীগ কর্মীকে বলেন- ব্যাগটি রাখলাম, বাথরুমে যাব। এ কথা বলেই ছেলেটি বাইরে যায়। এর কিছু সময় পরই বিস্ফোরণ ঘটে।
এ ঘটনার পর পরই আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীরা বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করে জড়িতদের গ্রেফতার ও বিচার দাবি করেন।
সমাবেশে বক্তৃতা করেন আটরা গিলাতলা ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ শেখ মনিরুল ইসলাম, খুলনা জেলা তাঁতী লীগের সদস্য সচিব কাজী আজাদুর রহমান হিরোক, অ্যাডভোকেট শাহারা ইরানী প্রিয়া, যুবলীগ নেতা মিজানুর রহমান রুপম, তরিকুজ্জামান মনির, শেখ তরিকুল ইসলাম, থানা তাঁতী লীগের আহ্বায়ক বিপ্লব, খুলনা মহানগর ছাত্রলীগের আপ্যায়নবিষয়ক সম্পাদক শেখ নাজমুল হক অয়ন, মহানগর ছাত্রলীগের সহসভাপতি খান মোসাদ্দেক হোসেন ইমন প্রমুখ।
পরে রাতে সাইট ইন্টেলিজেন্স এর রিতা কাটজ তার অফিসিয়াল টুইটার একাউন্টে বলেন, ‘দেশের তৃতীয় বৃহত্তম শহর খুলনায় আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে বোমা বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে আইএস। যা চলতি বছরে আইএসের ষষ্ঠ হামলা এবং ঢাকার বাইরে প্রথম আক্রমণ।’
এর আগে ঢাকায় একাধিকবার পুলিশকে টার্গেট করে হামলার ঘটনায় ও দায় স্বীকার করেছে জঙ্গিগোষ্ঠী আইএস। এসব তথ্যও নিশ্চিত করেছে সাইট ইন্টেলিজেন্স।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন