ঢাকা, বুধবার , ২০ নভেম্বর ২০১৯, ০৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬, ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

ভোলায় মুসল্লি নিহতের ঘটনায় দেশবাসী বিস্মিত ও ক্ষুব্ধ

বিভিন্ন ইসলামী দলের বিক্ষোভ ও বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ

স্টাফ রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:০১ এএম

বোরহানউদ্দিন উপজেলা সদরে মহানবী (সা.) অবমাননার প্রতিবাদে আয়োজিত শান্তিপূর্ণ সমাবেশে পুলিশের নির্বিচার গুলি বর্ষণে ভয়াবহ ও পৈশাচিক হতাহতের ঘটনায় দেশবাসি বিস্মিত হতবাক ও ক্ষুব্ধ। পুলিশের এমন মারমুখী আচরণ সা¤প্রদায়িক উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে উস্কানিমূলক এবং ক্ষমার অযোগ্য নিষ্ঠুরতা। মুসল্লি হত্যাকান্ডের ঘটনায় দায়ী পুলিশদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে। মহানবী (সা.) এর অবমাননাকারী ভোলার বিপ্লব চন্দ্র শুভকে কঠোর শাস্তি দিতে হবে।

আল্লাহ ও মহানবী (সা.) কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে ভোলার বোরহান উদ্দিনে মুসল্লিদের প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের গুলিতে ৪ জন নিহত ও শতাধিক আহতের প্রতিবাদে ঢাকায় তাৎক্ষণিকভাবে সর্বদলীয় বিক্ষোভ সমাবেশ ও বিভিন্ন ইসলামী দলের সভা-সমাবেশ ও বিবৃতিতে নেতৃবৃন্দ এসব কথা বলেন।

সর্বদলীয় বিক্ষোভ মিছিল
আল্লাহ ও মহানবী (সা.) কে নিয়ে কটুক্তির প্রতিবাদে ভোলার বোরহান উদ্দিনে মুসল্লিদের প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের গুলিতে ৪ জন নিহত ও শতাধিক আহতের ঘটনার প্রতিবাদে ঢাকায় তাৎক্ষণিকভাবে সর্বদলীয় বিক্ষোভ মিছিল করেছে বিভিন্ন ইসলামী দল। রোববার বাদ আসর বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদের উত্তর গেটে বিক্ষোভ মিছিল পূর্ব সমাবেশ জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের ঢাকা মহানগরী সভাপতি মাওলানা মনজুরুল ইসলাম আফিন্দির সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে বক্তব্য রাখেন খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আহমদ আলী কাসেমী, আলহাজ শেখ গোলাম আসগর, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের যুগ্ম মহাসচিব মাওলানা আতাউল্লাহ আমিন, মাওলানা আজিজুর রহমান হেলাল, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক মাওলানা আবদুল গাফফার ছয়ঘরি, ঢাকা মহানগরীর সাধারণ সম্পাদক মতিউর রহমান গাজী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মাহবুবুল আলম, মাওলানা নূর মুহাম্মদ, হেদায়েতুল ইসলাম, ইমরানুল বারী সিরাজী, খেলাফত মজলিসের কেন্দ্রীয় দফতর সম্পাদক অধ্যাপক মো. আবদুল জলিল, ঢাকা মহানগরী সেক্রেটারী মাওলানা আজীজুল হক, বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস ঢাকা মহানগরীর সভাপতি মুফতি আবদুল মুমিন, বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্র মজলিসের কেন্দ্রীয় সভাপতি মনসুরুল আলম মনসুর, জমিয়তে তালাবায়ে আরাবিয়ার কেন্দ্রীয় সভাপতি আবদুর রহমান, ছাত্র জমিয়তের কেন্দ্রীয় সভাপতি তোফায়েল গাজালী ও আমীর আলী হাওলাদার প্রমুখ।
সমাবেশ শেষে এক বিক্ষোভ মিছিল বায়তুল মোকাররম উত্তর গেট থেকে শুরু হয়ে পল্টন মোড়ে এসে শেষ হয়।

নেছারাবাদী হুজুর
ভোলায় সংঘটিত পুলিশ মুসল্লি সংঘর্ষ ও হতাহতের ঘটনায় হযরত কায়েদ ছাহেব হুজুর (রহ.)এর একমাত্র ছাহেবজাদা হযরত মাওলানা মুহাম্মদ খলীলুর রহমান নেছারাবাদী হুজুর গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেন, মুসল্লিদের প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের বেপরোয়া গুলি ও হামলার যে ন্যাক্করজন ঘটনা ঘটেছে আমরা তার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। এই ঘটনায় যারা শাহাদত বরণ করেছেন তাদের জান্নাতে উঁচু মাকাম কামনা করছি এবং আহতদের প্রতি গভীর সমবেদনা জ্ঞাপন করছি।
নেছারাবাদী হুজুর সব পক্ষকে শান্ত থাকার এবং জনগণকে আইন নিজের হাতে তুলে না নেয়ার আহŸান জানিয়ে বলেন,এই ন্যাক্কারজনক ঘটনায় অবশ্যই আমরা ক্ষুব্ধ ও মর্মাহত। আমরা বোরহানউদ্দিনবাসীকে আইন নিজের হাতে তুলে না নিয়ে ধৈর্র্য্য ও ত্যাগের মাধ্যমে বিষয়টি মোকাবেলার উদাত্ত আহŸান জানাই।

পীর সাহেব চরমোনাই
ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতি সৈয়দ মোহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাই ভোলার বোরহানুদ্দিনে নবীপ্রেমিক জনতার ওপর পুলিশের গুলি বর্ষণে শতাধিক মুসল্লি আহত ও নিহতের ঘটনায় গভীর উদ্বেগ ক্ষোভ ও নিন্দা জানিয়েছেন। এক বিবৃতিতে পীর সাহেব চরমোনাই বলেন, ভোলার বুরহানুদ্দিনে আল্লাহ ও রাসূল (সা.) কে নিয়ে একটি পক্ষ বার বার উস্কানি দিয়ে যাচ্ছে। এরা কারা? তিনি বলেন, প্রশাসন কার স্বার্থে নবীপ্রেমিক জনতার ওপর পাখির মত গুলি করে নবীপ্রেমিক মুসল্লিদের আহত এবং নিহত করেছে? সরকার কোনভাবেই এর দায়ভার এড়াতে পারবে না। অবিলম্বে দোষীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।

বোরহানুদ্দিনে তৌহিদী জনতার শান্তিপূর্ণ মিছিলে পুলিশের হামলার প্রতিবাদে আজ সোমবার বিকেলে ৩টায় রাজধানীর বায়তুল মোকাররম উত্তর গেটে ইসলামী আন্দোলন বিক্ষোভ সমাবেশের ঘোষণা দিয়েছে এবং ২৫ অক্টোবর শুক্রবার সারাদেশে বিক্ষোভ কর্মসূচি পালনের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। একই দিন শহীদদের স্মরণে সারাদেশের মসজিগুলোতে দোয়া অনুষ্ঠিত হবে।
গতকাল রোববার বিকেলে পুরানা পল্টনস্থ কার্যালয়ে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের এক জরুরি সভায় এ সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য প্রিন্সিপাল মাওলানা সৈয়দ মোসাদ্দেক বিল্লাহ আল-মাদানীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন দলের মহাসচিব প্রিন্সিপাল মাওলানা ইউনুছ আহমাদ, অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান, মাওলানা গাজী আতাউর রহমান, আমিনুল ইসলাম, মাওলানা ইমতিয়াজ আলম, ইঞ্জিনিয়ার আশরাফুল আলম, কেএম আতিকুর রহমান, আহমদ আবদুল কাইয়ূম।

ইসলামী ঐক্যজোট
ইসলামী ঐক্যজোটের চেয়ারম্যান ও বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পাটির সভাপতি মাওলানা আবদুল লতিফ নেজামী মহানবীর (সা.) সম্পর্কে ফেসবুকে আপত্তিকর ট্যাটাস পোষ্ট করার বিরুদ্ধে ভোলা জেলার বোরহানউদ্দিন উপজেলা সদরে আয়োজিত শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের নির্বিচারে গুলি বর্ষণে ভয়াবহ ও পৈশাচিক হতাহতের ঘটনার বিরুদ্ধে তীব্র ক্ষোভ ও নিন্দা প্রকাশ করে বলেছেন, এধরনের নির্মম ঘটনা সংঘটিত হওয়ায় দেশবাসি বিস্মিত হতাশ, হতবাক ও ক্ষুব্ধ।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ
ভোলায় তৌহিদী জনতার বিক্ষোভ সমাবেশে পুলিশের গুলি বর্ষণে মুসল্লি হতাহতের ঘটনায় তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানিয়েছেন জমিয়ে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ’র মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী। তিনি বলেছেন, পুলিশের এমন মারমুখী আচরণ সা¤প্রদায়িক উত্তেজনা ছড়িয়ে দিতে উস্কানিমূলক এবং ক্ষমার অযোগ্য নিষ্ঠুরতা।
এক বিবৃতিতে জমিয়ত মহাসচিব আরো বলেছেন, ইসলাম অবমাননার মতো এমন স্পর্শকাতর ঘটনার প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের কর্তব্য ছিল শান্তিশৃঙ্খলা বজায় রাখতে অত্যন্ত সতর্কতার সাথে দায়িত্ব পালন করা। অথচ পুলিশ অত্যন্ত নির্দয়ভাবে তাওহিদী জনতার উপর শত্রæর মতো ঝাঁপিয়ে পড়েছে। তিনি পুলিশের এমন ভূমিকার তীব্র নিন্দা এবং দায়ীদের অবিলম্বে গ্রেফতারপূর্বক কঠোর শাস্তি দাবি জানান।

নেজামে ইসলাম
ভোলার বোরহান উদ্দিনে মুসল্লিদের প্রতিবাদ সমাবেশে পুলিশের গুলিতে ৪ জন নিহত ও শতাধিক আহতের ঘটনা তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ নেজামে ইসলাম পার্টির আমীর মাওলানা সরওয়ার কামাল আজিজী ও মহাসচিব মাওলানা মুসা বিন ইজহার। তারা দোষীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান।

ইসলামী ঐক্য আন্দোলন
ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের আমীর ড. মওলানা মুহাম্মদ ঈসা শাহেদী ও সাধারণ সম্পাদক ড. মওলানা মুহাম্মদ এনামুল হক আজাদ এক যুক্ত বিবৃতিতে ভোলায় পুলিশের গুলিতে মুসল্লি শাহাদাত ও আহতের ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বলেছেন, ৯০ভাগ মুসলমানের দেশে রাসূল (সা.) কে কটুক্তি করার প্রতিবাদে বিক্ষোভকারী মুসল্লিদের উপর পুলিশের গুলি ও নিহতের ঘটনা কোন স্বাভাবিক ব্যাপার নয়। নেতৃদ্বয় ঘটনায় দায়ী পুলিশ সদ্যসদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি ও রাসূল (সা.) কে কটুক্তিকারী যুবককে আইনি আওতায় আনার দাবি জানান।

বাংলাদেশ খেলাফত মজলিস ভোলায় আয়োজিত সমাবেশ ও মিছিলে পুলিশের নির্বিচারে গুলিবর্ষণ ও হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের আমীর শায়খুল হাদীস আল্লামা ইসমাঈল নূরপুরী ও মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক । তারা বলেন, আল্লাহ ও রাসুল (সা.) এর বিরুদ্ধে কটুক্তিকারীদের সর্বোচ্চ শাস্তির বিধান জাতীয় সংসদে পাস করতে হবে।

বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলন
ভোলায় রাসূল (সা.) কে অবমাননা করার প্রতিবাদে শান্তিপূর্ণ সমাবেশে পুলিশের বাধা এবং নির্বিচারে গুলিকরে ৪ জনকে শহীদ করার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের আমীর মাওলানা আতাউল্লাহ হাফেজ্জী।
তিনি বলেন, শতকরা ৯৫% মুসলমানের দেশে বিশ্ব মানবতার শান্তির দূত হযরত মুহম্মাদ (সা.) এর অবমাননা বরদাশত করা হবে না। অভিযুক্ত কটুক্তিকারীর বিচার করা না হলে সারাদেশে আন্দোলনের দাবানল ছড়িয়ে পড়বে।

গতকাল রোববার বিকেলে রাজধানীর কামরাঙ্গীরচরে বাংলাদেশ খেলাফত আন্দোলনের উদ্যোগে ভোলায় পুলিশের গুলিতে হত্যাকান্ডের প্রতিবাদে আয়োজিত বিক্ষোভ মিছিল শেষে অনুষ্ঠিত সমাবেশে সভাপতির ভাষণে তিনি এসব কথা বলেন। মিছিলটি বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ করে থানা সংলগ্ন চৌরাস্তায় এসে এক সমাবেশে মিলিত হয়। সমাবেশে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন দলের মহাসচিব মাওলানা হাবীবুল্লাহ মিয়াজী, নায়েবে আমীর মাওলানা মুজিবুর রহমান হামিদী।

এছাড়া ভোলায় পুলিশের গুলিতে মুসল্লি হতাহতের ঘটনার তীব্র প্রতিবাদ নিন্দা এবং দোষীদের শাস্তির দাবি জানিয়ে আরো যেসব নেতৃবৃন্দ পৃথক পৃথক বিবৃতি দিয়েছে তারা হচ্ছে, হেফাজতে ইসলাম ঢাকা মহানগরীর সেক্রেটারি মাওলানা আবুল হাসানাত আমিনী, কওমী মাদরাসার শিক্ষক সমিতির সভাপতি মাওলানা মুফতী আব্দুল কাইয়ূম সোবহানী ও মহাসচিব মাওলানা আতাউর রহমান আতিকী, বাংলাদেশ জনসেবা আন্দোলনের চেয়ারম্যান মুফতী মো. ফখরুল ইসলাম।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (8)
llp ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১২:৪৯ এএম says : 0
Its is benzer ahmed and his force want to silence your voice by terrorizing muslims.
Total Reply(1)
Yourchoice51 ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১০:০২ এএম says : 0
who is this benzer? this guy appears to be a Munafiq.
Md Aman ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২২ এএম says : 0
দেশবাসী শুধু ক্ষুব্ধ হতে পারে, প্রতিবাদী হতে পারে না
Total Reply(0)
Kh Pabel ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২২ এএম says : 0
আমি শহীদ এর মরন চাই।হে আল্লাহ আমাকে তোমার শহীদের সাথে কবুল করে নিও।
Total Reply(0)
Sarwer Morshed ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২২ এএম says : 0
ঈমান নিয়ে চলাটা এখন জীবনের হুমকি হয়ে দাঁড়িয়েছে!অবাক দেশ!!!
Total Reply(0)
Rowshan Gazi ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২৩ এএম says : 0
আল্লাহ রাব্বুল আলআমিন মহান বিচারক।অপেক্ষা করুন শাস্তি চোখে দেখতে পাবেন।
Total Reply(0)
Abid Hassan ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২৩ এএম says : 0
এই বাংলাদেশে, প্রধানমন্ত্রী কে নিয়ে কটুক্তি করলে ৭ বছরের জেল,কিন্তু রাসুল(সাঃ) কে নিয়ে কটুক্তি করলে কিছু তো হয় ই না,উল্টো তার প্রতিবাদ করলে রক্ত ঝরে। এ কোন দেশে আছি আমরা?
Total Reply(0)
Kazal Islam ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২৪ এএম says : 0
পুলিশ কেন গুলি করলো, এর চেয়ে বড় বড় সমাবেশে পরিস্থিতি অবনতির আশংকা থাকলে পুলিশ রাবার বুলেট, জলকামান এগুলা ছুড়ে। কিন্তু সরাসরি বুলেট দিয়ে দেশের জনগন মেরে ফেলা পুলিশের কাজ নয়। অবশ্যই পুলিশকে জবাব দিহিতার আওতায় আনতে হবে
Total Reply(1)
raihan ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ৭:২৩ পিএম says : 0
এটা ইচছা করে করসে
Abir Rayhan ২১ অক্টোবর, ২০১৯, ১:২৫ এএম says : 0
বঙ্গবন্ধু বলেছিল, ওরা আমাদের টেক্সের টাকায় অস্ত্র কিনে সেই অস্ত্র আমার দেশের লোকের উপড় ব্যবহার করছে। এখানে পুলিশ সেই পাকিস্তানি পুলিশের মতই ভূমিকা পালন করছে। এদের ফাঁসির দাবী জানাচ্ছি।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন