ঢাকা রোববার, ০৬ ডিসেম্বর ২০২০, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২০ রবিউস সানি ১৪৪২ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

শিবু হত্যাকান্ডে দুই ঘাতকের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী

প্রকাশের সময় : ৭ আগস্ট, ২০১৬, ১২:০০ এএম

মাধবপুর (হবিগঞ্জ) উপজেলা সংবাদদাতা

হবিগঞ্জের মাধবপুর উপজেলার সুরমা গ্রামে সিএনজি মিস্ত্রী শিবু সরকার হত্যার রহস্য উন্মোচিত হয়েছে। মোবাইল ফোনের সূত্র ধরে হত্যায় জড়িত সন্দেহে গ্রেফতার একই গ্রামের ইদ্রিস মিয়ার ছেলে জানে আলম (২০) ও মৃত আনোয়ার আলীর ছেলে শিপন মিয়া (১৯) গত শুক্রবার সন্ধ্যায় হবিগঞ্জ জ্যেষ্ঠ বিচারিক আমলি আদালত ৬-এ ম্যাজিস্ট্রেটের খাস কামড়ায় ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছে। মাধবপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোকতাদির হোসেন এর সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, দুই ঘাতক জবানবন্দিতে জানায়, গত ৫ জুলাই রাত ৯টায় শিপন জরুরি কথা বলে সিএনজি মিস্ত্রী শিবু সরকারকে ডেকে নিয়ে আন্দিউড়া নোয়াহাটি মধ্যবর্তী স্থানে খুন করে কাটেঙ্গা বিলে লাশ মাটি চাপা দেয়। হত্যা মিশনে জানে আলম, মানিক সরকার, রানা সরকার, নিশু সরকার ও ছানা সরকার ছিল। দুই ঘাতকের স্বীকারোক্তি মতে শুক্রবার রাতে অভিযান চালিয়ে সুরমা গ্রামের সিএনজি মিস্ত্রী মানিক সরকার, রানা সরকার ও নিসু সরকারকে গ্রেফতার করে গতকাল শনিবার সকালে তাদের আদালতে সোপর্দ করা হলে বিচারক জামিন না-মঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। উল্লেখ্য, গত ৫ জুলাই অনিল সরকারের ছেলে সিএনজি মিস্ত্রী শিবু সরকার নিখোঁজ হয়। ৪ দিন পর ৯ জুলাই শিবু সরকারের গলিত লাশ কাটেঙ্গা বিলে ভেসে উঠে। এ ঘটনায় শিবু সরকারের ভাই বাদী হয়ে সুরমা গ্রামের সাবেক মেম্বার দিলীপ পাল একই গ্রামের সুবোধ সরকার, প্রদীপ সরকার, নিরঞ্জন সরকার, বিষ্ণু সরকারসহ ৮ জনের নাম উল্লেখ করে একটি হত্যা মামলা দেয়। পরে তদন্ত কর্মকর্তা শিবু সরকারের মোবাইল ফোনটি ঢাকার মিরপুর শেওড়াপাড়া থেকে উদ্ধার করে। মোবাইল ফোন ব্যবহারকারী জাহাঙ্গীর নামে এক যুবককেও আটক করে। সে মাধবপুর উপজেলার আউলিয়াবাদ গ্রামর দুধু মিয়ার ছেলে। জাহাঙ্গীর মোবাইল ফোনটি শিপন ও জানে আলমের কাছ থেকে ৫শ’ টাকায় ক্রয় করে। পরে তার দেয়া তথ্য মতে পুলিশ দুই ঘাতক জানে আলম ও শিপনকে গ্রেফতার করলে মামলার রহস্য উন্মোচিত হয়। মামলার তদন্ত কর্মকর্তা এসআই আশিষ কুমার মৈত্র জানান, দুই ঘাতকের স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দিতে যাদের নাম এসেছে এসব তথ্য-উপাত্ত যাচাই-বাচাই করা হচ্ছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন