ঢাকা বুধবার, ২০ জানুয়ারি ২০২১, ০৬ মাঘ ১৪২৭, ০৬ জামাদিউস সানী ১৪৪২ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

রামদয়াল-বিবিরহাট সড়কের পুনঃসংস্কার শুরু

আমানত উল্যাহ, রামগতি (ল²ীপুর) থেকে | প্রকাশের সময় : ১৩ জানুয়ারি, ২০২১, ১২:০১ এএম

ল²ীপুরের রামগতি উপজেলার রামদয়াল-বিবিরহাট সড়কের পুন:সংস্কারের কাজ শুরু করেন সেই বিতর্কিত ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান মেসার্স হাসান টেডার্স। সংস্কারের দুই মাসের মাথায় চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়ায় দৈনিক ইনকিলাবসহ বেশ কয়েকটি পত্রিকায় সংবাদ প্রকাশের সূত্র ধরে সড়কটির পুন:সংস্কার শুরু হয়েছে।
সূত্র জানায়, ৬ কিলোমিটার রামদয়াল-বিবিরহাট পাকাসড়কটি দুই মাস পূর্বে ১ কোটি ৮০ লাখ টাকা ব্যয়ে সংস্কার করেন মেসার্স হাসান টেডার্স নামে একটি বিতর্কিত ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। নির্মাণের মাত্র দুই মাসের মাথায় সড়কের পিচ ঢালাই হাতের খোঁচাতেই ওঠে যায়। নির্মাণ কাজে ব্যাপক অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে সংস্কারকারী ঠিকাদারী এ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে। বর্তমানে এই অঞ্চলে চলাচলকারী প্রায় ৬০ হাজার মানুষের একমাত্র ভরসা সড়কটি। এতে নানা অনিয়ম ও দুর্নীতির মাধ্যমে নিম্নমানের কাজ হওয়ায় এলাকাবাসীর মাঝে চরম ক্ষোভের সঞ্চার হয়েছে। এছাড়াও ঐ ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের আওতায় রামগতি উপজেলায় সংস্কার ও নির্মাণকৃত বেশিরভাগ সড়কের এমন পরিস্থিতি বলে দাবি করছেন ভুক্তভোগীরা। এলাকাবাসী ও ভুক্তভোগীদের অভিযোগের আলোকে সরেজমিনে তদন্ত করে গত ২৮ ডিসেম্বর দৈনিক ইনকিলাবসহ কয়েকটি জাতীয় ও স্থানীয় সংবাদ মাধ্যেেম এই নিয়ে সংবাদ প্রকাশিত হলে কর্তৃপক্ষের নজরে আসে। পরে রামগতি উপজেলা স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদফতর (এলজিইডি) সড়কটি পুনরায় সংস্কার করার জন্য টেন্ডার পাওয়া ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান হাসান টেডার্সের স্বত্বাধিকারী রামগতি পৌরসভা আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুল ওয়ারেছ মোল্লাকে নির্দেশ দেন।
এ বিষয়ে এলজিইডি’র রামগতি উপজেলা প্রকৌশলী মহিউদ্দিন মাসুম বলেন, ঐ সড়কে বেশ কিছু অনিয়ম হওয়ার খবর বিভিন্ন গণমাধ্যমে ওঠে আসলে আমরা ঐ ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের সব ধরনের বিল বন্ধ করে পুনরায় সড়কটি সংস্কার করার নির্দেশ দিয়েছি। শতভাগ কাজ সমাপ্ত হলে তদন্ত সাপেক্ষ বিল দেয়া হবে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন