শুক্রবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২২, ১৪ মাঘ ১৪২৮, ২৪ জামাদিউস সানি ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

গেরুয়াবেশী ইসকন জঙ্গি

চট্টগ্রামে সংবাদ সম্মেলনে প্রবর্তক সংঘ অর্থ পাচার ও লোপাটের অভিযোগ চুক্তি বাতিলের ঘোষণা

চট্টগ্রাম ব্যুরো | প্রকাশের সময় : ২৭ জুন, ২০২১, ১২:০১ এএম

ইসকনের বিরুদ্ধে আবারো সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের অভিযোগ করেছে প্রবর্তক সংঘ। সংঘের নেতারা বলেন, গেরুয়া বেশধারী ইসকন নামধারীরা পেশী শক্তি ব্যবহার করে প্রবর্তকের জমি দখল করছে। তারা জঙ্গিবাদি তৎপরতা সম্প্রসারণ করতে বহিরাগত সন্ত্রাসীদের মন্দিরে জড়ো করছে। এই আসুরিক শক্তির কড়াল গ্রাস থেকে প্রবর্তক সংঘকে রক্ষায় সনাতন ধর্মাবলম্বীদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান।

গতকাল শনিবার চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের বঙ্গবন্ধু হলে এক সংবাদ সম্মেলনে প্রবর্তক সংঘের নেতারা ইসকনের বিরুদ্ধে অর্থ লোপাট এবং বিদেশে পাচারেরও অভিযোগ করেন। এতে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন প্রবর্তক সংঘের সাধারণ সম্পাদক তিনকড়ি চক্রবর্তী। তিনি বলেন, ইসকনকে প্রবর্তক সংঘ মন্দির প্রতিষ্ঠার জন্য জমি দান করে। সেখানে মন্দির তৈরি করে তা পরিচালনা করবে ইসকন। কিন্তু এখন তারা চুক্তির সব শর্ত ভঙ্গ করে প্রবর্তক সংঘের জমি দখলসহ সন্ত্রাসী এবং জঙ্গি তৎপরতায় লিপ্ত হয়েছে। ইসকন নামীয় জঙ্গিদের ক্রমবর্ধমান ভূমি আগ্রাসন চলছে। তারা প্রবর্তক মন্দিরের নাম ব্যবহার করে ধর্মপ্রাণ ভক্তদের কাছ থেকে অনুদান সংগ্রহ করে অন্যত্র পাচার করছে।

তিনি বলেন, তারা মন্দিরে বহিরাগত সন্ত্রাসীদের জড়ো করে তাদের জঙ্গি কর্মকাণ্ড সম্প্রসারণ করার চেষ্টা করছে। ইসকন জঙ্গিরা নিজেরা বড় ধরনের কোন নাশকতামূলক ঘটনা ঘটিয়ে তা আমাদের নামে চালিয়ে দেওয়ার চক্রান্ত করছে বলেও আমরা জানতে পেরেছি। এ বিষয়ে ইসকনের বিরুদ্ধে পাঁচলাইশ থানায় জিডি হয়েছে বলেও জানান তিনি।

তিনকড়ি চক্রবর্তী ইসকনের বিরুদ্ধে বিদেশে অর্থপাচার এবং মন্দিরের নামে কর রেয়াতে পাথর, কাঠসহ মূল্যবান নির্মাণ সামগ্রী আমদানি করে অন্যত্র বিক্রি করে দেওয়ার অভিযোগ তুলে এসব ঘটনা তদন্তের দাবি জানান।
তিনি বলেন, সনাতন ধর্মে জঙ্গিবাদের কোন স্থান নেই। এরা ধর্মকে কলঙ্কিত করেছে। আমরা আগেই বলেছি এরা সাধুবেশে সন্ত্রাসী। ইসকনের সাথে প্রবর্তক সংঘের করা চুক্তি বাতিলের সকল আইনগত প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, আমরা চুক্তি বাতিল করব। তিনি বলেন বার বার তাদের বসার জন্য বলা হলেও তারা তাতে সাড়া দেয়নি। প্রবর্তক সংঘকে বাদ দিয়েই তারা মন্দির উদ্বোধন করেছে। জাল কাগজ সৃষ্টি করে গ্যাস, বিদ্যুৎ ও পানি সংযোগ নিয়েছে। তিনি বলেন, চুক্তি অনুযায়ী তারা মন্দির বানাবে আর সেখানে পূর্জার আয়োজন করবে। কিন্তু এখন তারা ব্যবসা করছে। তাদের এমন জঙ্গিবাদি অপতৎপরতা জানা থাকলে তাদের সাথে কোন চুক্তি হতো না বলেও জানান তিনি।

দুদকে প্রবর্তক সংঘের পক্ষ থেকে ইসকনের বিরুদ্ধে গত ১৬ জুন অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ইসকন মন্দির নির্মাণে ১০০-১৬০ কোটি টাকা খরচ করেছে। কিন্তু এর কোন হিসাব তারা দেয়নি। প্রকৌশলীদের মতে, এই মন্দির নির্মাণে সর্বোচ্চ ২০-২২ কোটি টাকা খরচ হতে পারে। ইসকনের নাম ব্যবহার করে তারা কোটি কোটি টাকা আয় করেছে,পাচার করছে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন প্রবর্তক সংঘের সভাপতি অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র লালা, সহ-সভাপতি প্রফেসর রনজিৎ কুমার দে, ট্রেজারার ডা. শ্রীপ্রকাশ বিশ্বাস, সদস্য অ্যাডভোকেট স্বভূপ্রসাদ বিশ^াস প্রমুখ।

ইসকনের বক্তব্য
প্রবর্তক সংঘ আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনের ব্যাপারে গতকাল ইসকন প্রবর্তক শ্রীকৃষ্ণ মন্দিরের অধ্যক্ষ শ্রীপাদ লীলারাজ গৌর দাস ব্রহ্মচারী স্বাক্ষরিত এক বিবৃতিতে বলা হয়, ইসকন সম্পর্কে প্রবর্তক সংঘের দেয়া বক্তব্য অত্যন্ত দুর্ভাগ্যজনক। ১৯৩৫ সালে প্রতিষ্ঠিত শ্রীকৃষ্ণ মন্দির ও মন্দিরের সেবা পূজায় আত্মোৎসর্গিকৃত সাধু সন্ন্যাসীদের আশ্রম বাণিজ্যিক স্বার্থে ব্যবহার করতে না পেরে তারা ইসকনের নিরীহ সাধুদের নামে মিথ্যা ও বানোয়াট তথ্য পরিবেশন করে ধর্মপ্রাণ মানুষদের বিভ্রান্ত করার অপপ্রয়াস করছেন। ইসকন শ্রীকৃষ্ণ মন্দিরের বিগ্রহের নির্দিষ্ট ভূমির বাইরে প্রবর্তক সংঘের ভূমি দখল করেনি। বরং সংঘের কতিপয় অর্থলোভী ব্যক্তি একের পর এক সাধুদেরকে মিথ্যা মামলা দিয়ে এক নৈরাজ্যকর পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছে। ইসকন সদস্যগণ সবসময় দেশের আইন, আদালত, সংবিধান ও সার্বভৌমত্বের প্রতি পুর্ণ অনুগত এবং রাষ্ট্র কর্তৃক অনুমোদিত অডিট ফার্ম কর্তৃক সমস্ত আর্থিক হিসাব নিকাশ নিয়মিতভাবে নিরীক্ষা করা হয়। মন্দিরের জন্য মার্বেল পাথর শতভাগ ব্যবহার করা হয়েছে। মন্দিরের আধ্যাত্মিক পরিবেশ বিনষ্ট করে সামাজিক বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির জন্য ইতিমধ্যে মন্দিরের বৈধ গ্যাস ও বিদ্যুৎ এবং পানি সরবরাহ ব্যবস্থ বন্ধ করার অপচেষ্টায় লিপ্ত হয়েছে বলেও প্রবর্তক সংঘের বিরুদ্ধে পাল্টা অভিযোগ করেন তিনি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (15)
Shek Forid ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩১ এএম says : 1
ইসকন বন্ধ করা হোক
Total Reply(0)
Ala Uddin Khan ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩১ এএম says : 0
ইসকন নিষিদ্ধ করা সময়ের দাবী
Total Reply(0)
Md. Altaf Mondol ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩২ এএম says : 0
ইসকন হলো বি জে পির এজেন্ট, এদের গতি বিধির উপর নজরদারি বাড়াতে হবে, সাম্প্রদায়িক সম্প্রতির দেশ বাংলাদেশ, তারা এদেশের বিরুদ্ধে চক্রান্ত করে চলেছে,
Total Reply(0)
Imam Hossain ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩২ এএম says : 0
ইস্কন ১০০% টেরোরিস্ট সংগঠন এটা বাংলাদেশে নিষিদ্ধ করা হোক....
Total Reply(0)
Mohammed Akhtaruzzaman ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩২ এএম says : 0
ইসকন ও এর অঙ্গসংগঠন সমূহ বাংলাদেশে নিষিদ্ধ করা হউক।
Total Reply(0)
Russell Khan ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩২ এএম says : 0
ধন্যবাদ প্রবর্তক সংঘকে। এখনই সময় সনাতন ধর্মাবলম্বী সবাইকে সাথে নিয়ে ইসকনকে উৎখাত করা। এই সংগঠন দেশের সাম্প্রদায়িক সম্প্রতি নষ্ট করে।
Total Reply(0)
Masumvinmustofa Masumvinmustofa ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩৩ এএম says : 0
বাংলাদেশ থেকে ইসকন কে নিষিদ্ধ করে, আইনের আওতায় এনে তাদের কে উপযুক্ত শাস্তি প্রয়োগ করা হোক।
Total Reply(0)
Shohag Al-Farooq ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩৩ এএম says : 0
ইসকন বাংলাদেশের ধর্মীয় সম্প্রতির পথে অন্তরায়।
Total Reply(0)
Tareq Ahmed ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩৩ এএম says : 0
ইস্কন ১০০% টেরোরিস্ট সংগঠন এটা বাংলাদেশে নিষিদ্ধ করা হোক....
Total Reply(0)
Abu Abdullah ২৭ জুন, ২০২১, ২:৩৩ এএম says : 0
আমি অনেক আগে থেকেই এদেরকে উগ্রপন্থী দল বলে আসছি!
Total Reply(0)
মো,নুরুজ্জামান ২৭ জুন, ২০২১, ৮:০৩ এএম says : 0
ইসকন কে নিষিদ্ধ করা হউক
Total Reply(0)
খোরশেদআলম ২৭ জুন, ২০২১, ১:৪২ পিএম says : 0
ইসকনকে নিষিদ্ধের জোর দাবিজানাচ্ছি
Total Reply(0)
Md Ifti Ahsan ২৭ জুন, ২০২১, ৯:২৫ এএম says : 0
অসাধারণ শিরোনাম,, খুব ভালো লাগলো
Total Reply(0)
Nadia Zahan ২৭ জুন, ২০২১, ৯:৪৭ এএম says : 0
এদের কিছু হবে না। এদেশের প্রতিবাদীদের শাস্তি হয় সন্ত্রাসীদের ন য়
Total Reply(0)
Shazid Hossain ২৭ জুন, ২০২১, ৯:৪৮ এএম says : 0
এই ইসকন নামক জঙ্গিবাদীদের নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হোক।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন