বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ২৫ রবিউস সানী ১৪৪৩ হিজরী

অভ্যন্তরীণ

বাঁশের সাঁকোই ১০ গ্রামবাসীর ভরসা

১৪ বছরেও সংস্কার হয়নি বিধ্বস্ত সেতু

এস কে সাত্তার, ঝিনাইগাতী (শেরপুর) থেকে | প্রকাশের সময় : ২৪ অক্টোবর, ২০২১, ১২:০৬ এএম

শেরপুরের ঝিনাইগাতী উপজেলার ঘাগড়া কবিরাজপাড়া খালেরপাড় সেতুটি বিধ্বস্ত হওয়ার ১৪ বছরেও সংস্কার করা হয়নি।
স্থানীয় জনগণ ও জনপ্রতিনিধিরা বলছেন, এলজিইডিকে বার বার জানিয়েও সমাধান মেলেনি। এ জন্য বাঁশের সাঁকো দিয়ে পারাপার হতে হচ্ছে ১০ গ্রাামের প্রায় ২২ হাজার মানুষকে। তাই স্থানীয়রা সেতুটি পুনঃনির্মাণের জোর দাবি জানিয়েছেন।
জানা যায়, ২০০৭ সালে ঘাগড়া কবিরাজপাড়া খালেরপাড়ে প্রায় ৪০ ফুট লম্বা সেতুটি নির্মাণ করে এলজিইডি। কিন্তু নির্মাণের কয়েক মাস যেতে না যেতেই পাহাড়ি ঢলে সংযোগ সড়কের মাটি সরে গিয়ে খালের পাড় ধসে সেতুটি খালের পানির মাঝখানে পড়ে যায়। এরপর ১৪ বছর পেরিয়ে গেলেও সেতুটি আর পুনঃনির্মাণ করা হয়নি।
সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান এম এ ওয়াহেদ, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম বাদশা, শতবর্ষী ডা. আব্দুল বারী, শরীফ উদ্দিন সরকার, আলহাজ রেজাউর রহমান মাস্টার ও মো. সরোয়ার্দী দুদু মণ্ডল প্রমুখ জানান, সেতু থাকায় চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে কবিরাজপাড়া, পটলপাড়া, মণ্ডলপাড়া, সরকারপাড়া, শাকপাড়া, মাছপাড়া, তালতলাসহ ১০/১২ গ্রামের প্রায় ২০/২২ হাজার মানুষকে।
এ প্রসঙ্গে ঝিনাইগাতী উপজেলা প্রকৌশলী মো. মোজাম্মেল হক জানান, ‘ওইখানে ব্রিজের এমন অবস্থা এটা আমার জানা নেই। আপনার মাধ্যমে জানলাম। আমি পরিদর্শন করে ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানাবো। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ যে নির্দেশনা দিবেন সেটা আমি যথাযথ বাস্তবায়ন করব।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন