শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ ফাল্গুন ১৪৩০, ১৩ শাবান সানি ১৪৪৫ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

আমাকে ‘কোণঠাসা বাঘ’ হতে বাধ্য করবেন না, হুঁশয়িারি ইমরান খানের

অনলাইন ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ৪ সেপ্টেম্বর, ২০২২, ৪:৫৬ পিএম

পিটিআই চেয়ারম্যান এবং পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান শনিবার তার রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বীদের সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন যে, তার পিঠ যদি দেয়ালে ঠেকে যায়, তাহলে তিনি ‘কোণঠাসা বাঘ’ হয়ে উঠতে পারেন।

শনিবার রাতে বাহাওয়ালপুরে এক সমাবেশে বক্তৃতাকালে ইমরান বর্তমান সরকারকে কটাক্ষ করে বলেন, তারা অর্থনীতিকে পরিচালনা করছে না এবং দেশ ঋণের তলায় আটকে আছে। পিটিআই প্রধান দাবি করেছেন যে, এ সঙ্কট থেকে মুক্তির একমাত্র উপায় হল পরিষ্কার ও স্বচ্ছ নির্বাচন পরিচালনা করা। তিনি আরো বলেন, নির্বাচনও জরুরি ছিল কারণ রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা ছাড়া অর্থনৈতিক সঙ্কট কাটিয়ে ওঠা সম্ভব নয়।

ইমরান বলেন, নির্বাচনের পর যে সরকার পাঁচ বছরের জন্য আসতে চলেছে তাতে স্থিতিশীলতা আসবে। তিনি বলেন, দেশের ইতিহাসে বর্তমান সরকারের মতো চার মাসে এত মূল্যস্ফীতি কখনো বাড়েনি। তিনি আরো বলেন, শুল্ক আরোপের কারণে প্রতি ইউনিট বিদ্যুৎ বিক্রি হচ্ছে ৫০ টাকায়। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বজায় রেখেছিলেন যে, জনগণ বুঝতে পারছে না যে, তারা বিদ্যুৎ বিল দেবে না তাদের সন্তানদের স্কুলের ফি দেবে।

ইমরান বাহাওয়ালপুরের সমাবেশে তার বক্তব্যে পিএমএল-এন সহ-সভাপতি মরিয়ম নওয়াজের অবস্থানকেও উপহাস করেছেন। ‘আমার উচিত মরিয়মকে এহসাস প্রোগ্রামে রাখা। বেচারা দিনে দুবেলা খাবার খেতে পারে না,’ তিনি কটাক্ষ করলেন। ইমরান দাবি করেন, লন্ডনে মরিয়মের নামে চারটি বড় প্রাসাদ পাওয়া গেছে। তিনি সমাবেশে অংশগ্রহণকারীদের বলেন, এই টাকা আপনাদের। তিনি বলেন, শরীফ পরিবার দুর্নীতির মাধ্যমে এই সমস্ত সম্পদ তৈরি করেছে।

ইমরান বলেন, যতক্ষণ পর্যন্ত ক্ষমতাবানরা আইনের আওতায় না আসে, ততক্ষণ পর্যন্ত ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠিত হতে পারে না। পৃথকভাবে, বাহাওয়ালপুরে একটি আইনজীবী সম্মেলনে ভাষণ দেয়ার সময়, পিটিআই চেয়ারম্যান বলেছিলেন যে, তিনি বহু বছর ধরে ন্যায়বিচা ১৬ বিলিয়ন রুপি ‘চুরি’ ফেডারেল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এফআইএ) দ্বারা ধরা পড়েছে। তিনি যোগ করেছেন যে, পিপিপির কো-চেয়ারপারসন আসিফ আলী জারদারির ‘চুরির’ পরিমাণ ১০০ বিলিয়ন রুপির বেশি। তিনি বলেন, চুরি করে টাকা বিদেশে গেলে দেশে বিনিয়োগ বন্ধ হয়ে যায়।

পিটিআই প্রধান দুঃখ প্রকাশ করেছেন যে, পুলিশ এই বছরের মে মাসে তাদের দলের কর্মীদের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে তাদের বিরুদ্ধে মামলা করেছে। তিনি আরও বলেন, তার বিরোধীরা যখন লংমার্চ করেছিল, তখন কাউকে মামলা করা হয়নি। তবে তিনি আরও বলেন, পিটিআইয়ের লংমার্চের সময় কর্মী-সমর্থকরা গোলাগুলির শিকার হন। এমনকি পরিবারগুলোও রেহাই পায়নি বলে দাবি করেন তিনি। তিনি আরও বলেন, ‘আমাদের সবাইকে একত্রিত হতে হবে এবং ন্যায়বিচারের বিপ্লব আনতে হবে।’ সূত্র: ট্রিবিউন।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন