বৃহস্পিতবার, ১৮ আগস্ট ২০২২, ০৩ ভাদ্র ১৪২৯, ১৯ মুহাররম ১৪৪৪

জাতীয় সংবাদ

পাঁচ দাবিতে নীলক্ষেতে ৭ কলেজের সড়ক অবরোধ

ঢাবি রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১৯ জানুয়ারি, ২০১৮, ১২:০০ এএম

জানুয়ারী মাসের মধ্যেই অনার্স ২০১৪-১৫ সেশনের ২য় বর্ষের পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশসহ ৫ দফা দাবিতে গতকাল রাজধানীর নীলক্ষেত নিউমার্কেট সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছে ঢাবি অধিভূক্ত সরকারী সাত কলেজের শিক্ষার্থীরা।
গতকাল দুপুর ১২ টা থেকে তারা এই অবরোধ কর্মসূচী শুরু করে এবং ২ টা পর্যন্ত অবস্থান করে। পরবর্তীতে ঢাকা বিশ^বিদ্যালয়ের ভিসি অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান এসে তাদের সাথে কথা বললে তারা ভিসির আশ^াসে দুপুর ২ টায় অবরোধ তুলে নেয়।
দুপুর দুইটার দিকে ভিসি তাদের সাথে কথা বলতে এবং তাদের দাবিসমূহ জানতে ঘটনাস্থলে আসলে ঢাকা কলেজের শিক্ষার্থী আবু বকর তাদের দাবিসমূহ ভিসির নিকট তুলে ধরেন। এসময় ভিসি বলেন, ফলাফল তো এখনো জাতীয় বিশ^বিদ্যালয়ের হতে তারা আমাদের কাছে হস্তান্তর করলেই আমরা যথাযথ প্রক্রিয়ায় দ্রæত ফলাফল প্রকাশ করবো। তিনি আরো বলেন, ৭ কলেজের ওয়েবসাইটে আমরা ঘোষণা দিয়েছি ২৫ ফেব্রæয়ারীর মধ্যেই ফলাফল প্রকাশ করবো এসময় শিক্ষার্থীরা মানিনা মানবোনা বলে প্রতিবাদ করলে তিনি বলেন, আমরা খুশি হবো এ মাসের মধ্যেই ফলাফল প্রকাশ করতে পারলে এবং আমরা এ ব্যপারে সর্বোচ্চ চেষ্টা করবো। আর যেসকল সেশনের পরীক্ষা আটকে আছে আমি কলেজের প্রিন্সিপালদের সাথে কথা বলে তোমাদের বাকী ক্লাস গুলো সম্পন্ন করে দ্রতই পরীক্ষার ব্যবস্থা করবো।
শিক্ষার্থীরা জানুয়ারীর মধ্যেই ফলাফল প্রকাশসহ মার্চে পরীক্ষার তারিখ ঘোষণা না করলে পরবর্তীতে আন্দোলন চালিয়ে যাবার ঘোষণা দিয়ে সেখানে তাদের কর্মসূচি সমাপ্ত করেন। তাদের উল্লেখিত ৫ টি দাবি হলো, জানুয়ারী মাসের মধ্যেই অনার্স ২০১৪-১৫ সেশনের ২য় বর্ষের ফলাফল প্রকাশ করতে হবে, মার্চের মধ্যেই ২০১৪-১৫ সেশনের ৩য় বর্ষের চুড়ান্ত পরীক্ষা শুরু করতে হবে, অধিভূক্ত সরকারি সাত কলেজের একাডেমিক ক্যালেন্ডার প্রকাশ করতে হবে, ২০১২-১৩ সেশনসহ সকল সেশনের চুড়ান্ত পরীক্ষা দ্রæত সম্পন্ন করতে হবে এবং ডিগ্রির সকল সেশনের আটকে থাকা পরীক্ষা ও পরীক্ষার ফলাফল দ্রæত প্রকাশ করতে হবে।
এদিকে শিক্ষার্থীদের এই আন্দোলনে না আসতে নানা ভাবে বাধা দিয়েছে ছাত্রলীগ। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক ঢাকা কলেজের ৩য় বর্ষের এক শিক্ষার্থী জানান আমরা যারা হলে আছি তাদের কে রাতে এসে বলে দেয়া হয়েছে যাতে আমরা এই আন্দোলনে না যাই এবং সকালেও আমাদেরকে আসতে বাধা দিয়েছে ছাত্রলীগের কর্মীরা।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন