ঢাকা, শনিবার, ১৫ আগস্ট ২০২০, ৩১ শ্রাবণ ১৪২৭, ২৪ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

হ্যারি ও মেগানের সিদ্ধান্তে রানির সম্মতি

ইনকিলাব ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৪ জানুয়ারি, ২০২০, ৫:৩৮ পিএম

রাজকুমার হ্যারি ও তার স্ত্রী মেগানের সিদ্ধান্তে ইতিবাচক সাড়াই দিলেন ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজ়াবেথ। গত বুধবার হ্যারি ও মেগান ‘সিনিয়র রয়্যাল’-এর ভূমিকা থেকে সরে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত ঘোষণার পরে আজ বৈঠকে রানি জানালেন, ওদের ইচ্ছের প্রতি তার ‘পুরোপুরি সমর্থন’ রয়েছে। কিন্তু রানি মনে করেন, ওরা ‘রয়্যাল’ থেকে গেলেই ‘বেশি ভাল হত।’ রানির বক্তব্য, হ্যারি ও মেগান এ বার কানাডা ও ব্রিটেনে মিলিয়ে মিশিয়ে সময় ভাগ করে থাকবেন। তবে গোটা বিষয়টি নিয়ে আরও কিছু প্রক্রিয়া বাকি রয়েছে বলে জানিয়েছেন ৯৩ বছরের রানি।

রানির সঙ্গে কথা বলার কয়েক ঘণ্টা আগে হ্যারি এবং তার বড় ভাই রাজকুমার উইলিয়াম আবার জানান, তাদের মধ্যে কোনও রকম দ্বন্দ্ব নেই। ব্রিটেনের একটি পত্রিকায় সোমবার দাবি করা হয়েছিল, মেগান আর হ্যারি নাকি বলেছেন, উইলিয়াম তাদের সঙ্গে ‘অপমানজনক আচরণ’ করেছেন। এই প্রতিবেদনের ভাষা ব্যবহার নিয়ে কড়া আপত্তি জানিয়েছেন দুই ভাই-ই।

পত্রিকাটি লিখেছে, হ্যারির স্ত্রী মেগান নাকি বলেছেন, ব্রিটেনের রাজপরিবারে ২০ মাস থাকার পরে এ বার সরে যেতে চান তিনি। সব কিছুর দায় তিনি চাপিয়েছেন হ্যারির বড় ভাই উইলিয়ামের উপরে। বড়দিনের সময়ই নাকি মেগান বলেছিলেন, ‘এ ভাবে আমি আর পারছি না!’

কিন্তু মঙ্গলবার ওই পত্রিকাকে এক হাত নিয়ে হ্যারি-উইলিয়াম বলেছেন, ‘আমরা ওই খবরের সত্যতা স্বীকার না করা সত্ত্বেও ব্রিটেনের দৈনিকে সেটি প্রকাশিত হয়েছে।’ এর পরে দুই ভাই বুঝিয়েছেন, মানসিক স্বাস্থ্যের মতো বিষয়ে তারা অসম্ভব গুরুত্ব দেন। তাই তাদের কেউ অবমাননাকর ভাষা প্রয়োগ করবেন, এটা অকল্পনীয়। ক্ষতিকরও বটে।

অন্য দিকে প্রিন্স ফিলিপ আবার ক্ষুব্ধ বলে দাবি। নরফোকের স্যানড্রিংহ্যাম এস্টেটে আজ তাকে সে ভাবেই দেখা গিয়েছিল। তিনি বলেছিলেন, আলোচনায় তিনি থাকতে চান না। রানি, যুবরাজ চার্লস এবং উইলিয়ামের উপরেই বিষয়টি ছেড়ে দেন তিনি। ২০১৭ সাল থেকে বাইরের কাজ থেকে অব্যাহতি নিয়েছেন ফিলিপ। তার পর থেকে নরফোকের স্যানড্রিংহ্যাম এস্টেটের একটি কটেজে থাকেন রানির সঙ্গে। গত বুধবার হ্যারি-মেগানের ঘোষণার পর থেকেই অত্যন্ত ক্ষুব্ধ হন ফিলিপ। ঘনিষ্ঠ সূত্রে তিনি নাকি বলেছিলেন, ‘ওরা কী করতে চাইছে?’ স্যানড্রিংহ্যাম এস্টেটের আলোচনায় আজ হ্যারিকে বোঝানো হয়েছে, ‘সিনিয়র রয়্যাল’-এর পদ থেকে সরলে কী কী বাধা তৈরি হবে। বৈঠকে উইলিয়ামের স্ত্রী, ডাচেস অব কেমব্রিজ কেট ছিলেন না। সূত্র: ইউরো নিউজ।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন