শনিবার, ২৮ মে ২০২২, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৬ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

দক্ষিণ কোরিয়ায় ফিরতে পারছে না প্রবাসী কর্মীরা

অনেকেই চাকরি হারানোর ঝুঁকিতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা

শামসুল ইসলাম | প্রকাশের সময় : ২২ আগস্ট, ২০২১, ১২:০১ এএম

দক্ষিণ কোরিয়াগামী আটকে পড়া প্রবাসী কর্মীরা চাকরি হারানোর ঝুঁকিতে পড়েছেন। করোনার মহামারির কারণে দেশটি ফিরতে না পেরে পরিবারের বোঝা হয়ে দাঁড়িয়েছে এসব কর্মী। এসব কর্মীরাই বিদেশে কঠোর পরিশ্রম করে প্রচুর রেমিট্যান্স দেশে পাঠাচ্ছে। দ্রæত দেশটিতে ফিরতে না পারলে নিয়োগকারী কোম্পানিগুলো বাংলাদেশ থেকে মুখ ফিরিয়ে নিতে পারে। কোরিয়াগামী একাধিক প্রবাসী কর্মী এ অভিমত ব্যক্ত করেছেন। দেশটির কর্মস্থলে ফিরে যেতে দ্বারে দ্বারে ঘুরেও কোনো সাড়া মিলছে না। তারা স্ব স্ব কর্মস্থলে ফিরে যেতে বাংলাদেশ সরকার ও দক্ষিণ কোরিয়া সরকারের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, দক্ষিণ কোরিয়া নিজ কর্মস্থলে ফিরতে পারছে না শত শত প্রবাসী কর্মী। করোনা মহামারি সংক্রমণের দরুণ ছুটিতে এসে আটকে পড়া কর্মীরা দেশটিতে যেতে না পেরে চরম অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছেন। ৮০০ জন কমিটেড রি-এন্ট্রি কর্মী এবং ইমপ্লয়মেন্ট পারমিট সিস্টেম (ইপিএস) পদ্ধতির নতুন নিয়োগ প্রাপ্ত ১১ শতাধিক কর্মী দক্ষিণ কোরিয়ায় গমনে অনিশ্চয়তার মুখে। আটকে পড়া কোরিয়াগামী এসব কর্মী দ্রæত দেশটির কর্মস্থলে যোগদানের সুযোগ সৃষ্টির লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একাধিক ভুক্তভোগি কোরিয়াগামী কর্মী এ হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

দক্ষিণ কোরিয়ার সাথে বাংলাদেশের ক‚টনৈতিক সম্পর্ক অত্যন্ত চমৎকার। ২০০৮ সালে ইমপ্লয়মেন্ট পারমিট সিস্টেম (ইপিএস) এর মাধ্যমে জি-টু-জি প্রক্রিয়ায় দক্ষিণ কোরিয়া সরকার বাংলাদেশ থেকে বিনা অভিবাসন ব্যয়ে কর্মী নিয়োগ শুরু করে। দেশটির ম্যানুফ্যাকচারিং শিল্পে বাংলাদেশি কর্মীরা অত্যন্ত সুনামের সাথে কাজ করে যাচ্ছে।

দক্ষিণ কোরিয়া সরকারের নিয়ম অনুযায়ী ১ জন বৈধ (কমিটেড রি-এন্ট্রি) কর্মী একই কোম্পানিতে প্রথম মেয়াদ (৪ বছর ১০ মাস) শেষ করে ৩ মাসের বাধ্যতামূলক ছুটি কাটাতে দেশে আসতে হয়। ৯০ দিন শেষ হলে পরের ২-৩ দিনের মধ্যে আবার কোরিয়া গমনের সুযোগ হয়।

বিগত ২০১৯ সালের ডিসেম্বরে দক্ষিণ কোরিয়া থেকে যে সমস্ত কমিটেড কর্মীরা ৯০ দিনের আবশ্যক ছুটি কাটাতে দেশে এসেছিল তারা পুনরায় কোরিয়ার স্ব স্ব কর্মস্থলে ফিরে যেতে পারেনি। ২০২০ সালের মার্চ মাস থেকে করোনা মহামারিতে সৃষ্ট ভিসা নিষেধাজ্ঞার কবলে পরে এসব কোরিয়াগামী কর্মীরা চরম অনিশ্চয়তার মাঝে দিন কাটাচ্ছে।
দেশের করোনা পরিস্থিতি কিছুটা উন্নত হলে ২০২১ সালের শুরুতে কোরিয়ান সরকার ভিসা নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে। কিন্তু তখন ইপিএস এর কমিটেড কর্মীদের না পাঠিয়ে ছাত্র, ব্যবসায়ীদের অগ্রাধিকার দেয়া হয়। ছাত্র, ব্যবসায়ীরা ইচ্ছামাফিক করোনা টেস্ট না করে জাল নেগেটিভ সার্টিফিকেট নিয়ে কোরিয়া প্রবেশ করে। কিন্তু কোরিয়া গিয়ে তাদের অনেকের করোনা পজিটিভ প্রমাণিত হয়। এভাবে একাধিক ফ্লাইটে জাল সার্টিফিকেট নিয়ে যাওয়ার ফলে বাংলাদেশ আবারও ভিসা নিষেধাজ্ঞার আওতায় পড়ে। যার ফলে কমিটেড রি-এন্ট্রি আটকে পড়া কর্মীদের কোরিয়া গমন অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে।

এদিকে, বাংলাদেশ থেকে কর্মী গমনে দীর্ঘ বিলম্বের কারণে কোম্পানির মালিকপক্ষ অন্য দেশ থেকে কর্মী সংগ্রহ শুরু করেছে। অথচ এই কমিটেড কর্মীরাই তাদের ত্যাগ ও শ্রম দিয়ে কোরিয়ান আইনের প্রতি শ্রদ্ধা প্রদর্শন করে, কোম্পানি পরিবর্তন না করে কোরিয়াতে বাংলাদেশের শ্রম বাজার সমুন্নত রেখেছিল। কিন্তু আজকে এই ত্যাগী কর্মীরাই এক অনিশ্চিত ভবিষ্যৎ এর মুখোমুখি। কোরিয়াগামী প্রবাসী কর্মীরা দেশটিতে ফিরে যাওয়ার দাবিতে দু’এক দিনের মধ্যে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় ও প্রবাসী কল্যাণ মন্ত্রণালয়ে স্মারকলিপি পেশ করবে বলে জানা গেছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (13)
H M Saddam Khandaker ২২ আগস্ট, ২০২১, ১:১৬ এএম says : 0
প্রবাসীদের সমস্যা দ্রুত সমাধান করার দাবি জানাচ্ছি
Total Reply(0)
মোঃ নাজমুল ইসলাম ২২ আগস্ট, ২০২১, ১:১৭ এএম says : 0
কখায় বলা হয় রেমিটেন্স যোদ্ধা কিন্তু তাদের পাশে কেউ নেই
Total Reply(0)
সম্রাট রায় ২২ আগস্ট, ২০২১, ১:১৮ এএম says : 0
প্রবাসী মন্ত্রণালয় কি করে, তারা কি এটা চোখে দেখে না।
Total Reply(0)
Md hridoy sheikh ২২ আগস্ট, ২০২১, ১:৪৫ এএম says : 0
আমার ভিসা ইস্যু হয়েছে। আমি ফাইজার ভেক্সিন 2 দোজ কমপিলিত করেছি। আমি কুরিয়া জাবার জন্ন সব সরতে রাজি আছি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আকুল আবেদন করছি আমাদের কুরিয়া জাওয়ার বেবস্তা করেদিন।আমরা বর্তমানে অনেক খারাপ অবস্থায় আছি।
Total Reply(0)
Md Hridoy Sheikh ২২ আগস্ট, ২০২১, ২:০০ এএম says : 0
আসসালামু আলাইকুম।মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমাদের আকুল আবেদন। আমাদেরকে দ্রুত কোরিয়া যাওয়ার ব্যবস্থা করে দিন।
Total Reply(0)
Md Hridoy Sheikh ২২ আগস্ট, ২০২১, ২:০২ এএম says : 0
মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর কাছে আমরা আবেদন করছিআমাদের কুরিয়ার যাওয়ার ব্যবস্থা করে দিন
Total Reply(0)
Md Hridoy Sheikh ২২ আগস্ট, ২০২১, ২:০৪ এএম says : 0
প্রবাসীদের সমস্যা সমাধানের জন্য বিনীত অনুরোধ করছি।
Total Reply(0)
Md Hridoy Sheikh ২২ আগস্ট, ২০২১, ২:০৭ এএম says : 0
Help EPS workers Bangladesh plz.
Total Reply(0)
ABU TALIB ২২ আগস্ট, ২০২১, ৯:১০ এএম says : 0
দ্রুত সমস্যা নিরসন করতে হবে, মন্ত্রণালয়ের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।
Total Reply(0)
মাহবুব আলম ২২ আগস্ট, ২০২১, ৯:২৭ এএম says : 0
প্রবাশীদের পাটঠানো কষ্টার্জিত রেমিটেন্সের কারনেই বাংলাদেশ আজ অর্থনৈতিক দিক দিয়ে অনেক এগিয়ে।আর একজন দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাশী প্রতিমাসে নূন্যতম ২০০০ হাজার মার্কিন ডলার পেরণ করে থাকে ।তবে কেন তাদের এত অবহেলা করা হয়,দূত সমস্যা সমাধানের জন্য উর্ধতণ কর্তৃপক্ষের দৃষ্টি আকর্ষণ করছি
Total Reply(0)
মিজানুর রহমান ২২ আগস্ট, ২০২১, ৯:৫৫ এএম says : 0
দ্রুত ভিসা নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করে কোরিয়া গামীদের ফ্লাইটের ব্যবস্থার জন্য অনুরোধ করছি।
Total Reply(0)
উজ্জল দেবনাথ ২২ আগস্ট, ২০২১, ২:১৭ পিএম says : 0
মন্ত্রণালয় থেকে কূটনৈতিক তৎপরতা চালালে অবশ্যই সম্ভব
Total Reply(0)
কে এম অপু ২২ আগস্ট, ২০২১, ১১:১৮ পিএম says : 0
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও যথাযথ কর্তৃপক্ষের নিকট আহবান জানাই বাংলাদেশের শ্রমবাজার কে তরান্বিত করতে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন