ঢাকা রোববার, ২৫ অক্টোবর ২০২০, ৮ কার্তিক ১৪২৭, ০৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

দাউদকান্দিতে মহাসড়ক অবরোধ

সা’দ পন্থীদের ইজতেমা বন্ধের দাবি

দাউদকান্দি (কুমিল্লা) উপজেলা সংবাদদাতা : | প্রকাশের সময় : ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

কুমিল্লার দাউদকান্দি উপজেলার স্বল্প পেন্নাই গ্রামে (ইশাখা সিএনজি পাম্প সংলগ্ন) সা’আদ পন্থীদের ৩ দিন ব্যাপী ইজতেমা বন্ধের দাবিতে গতকাল বুধবার দাউদকান্দি ওলামায়ে কেরাম ও তৌহিদী জনতার উদ্যোগে দ্বিতীয় দিনে সকাল ১০টা থেকে কুমিল্লার ১৭টি উপজেলা থেকে হাজার হাজার ধর্ম প্রাণ মুসলমান দাউদকান্দি কেন্দ্রীয় ঈদগাহ মাঠে সমাগম হয়ে বিক্ষোভ মিছিল করে।
দুপুরে দাউদকান্দি উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয় ঘেরাও করে রাখে। পরে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক অবরোধ করে এক প্রতিবাদ সভার আয়োজন করে। প্রতিবাদ সভায় বক্তব্য রাখেন আলমি সূরা পন্থির মাওলানা নজরুল ইসলাম ফরাজী, মাওলানা আবু ইউসুফ, মাওলানা মুফতি মুজিবুর রহমান, মাওলানা মুফতি আমজাদ হোসেন প্রমূখ।
দাউদকান্দি উপজেরা পরিষদ চেয়ারম্যান মেজর মোহাম্মদ আলী সমুন ও দাউদকান্দি মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ মো. রফিকুল ইসলামের আশ্বাসে বিক্ষোভ কারীরা অবরোধ ছেড়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়ক থেকে সরে যায়।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (4)
Shah Alam ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:৫৮ এএম says : 0
আল্লহ ফেতনাবাজদের থেকে জাতিকে মুক্ত কর। ভারত যেখানে মুসলিম নিদন করছে,সে খানে এই অসৎ লোকগুলোর কান্ড সত্যই আবাক করার মত।
Total Reply(0)
MD Al Amin ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ১:৫৮ এএম says : 0
আরকত করবা বাই আল্লাহকে একটু ভয়করোনা তাহকিক চারা সবাইকে বাতিল বলতেচো সবাইকে বলতেচো তোমারকি ঐ হাদিচের কথামনেমাই তুমি জাকে বাতিল বলচো সেজদি বাতিল নাহয় তাজলে তোমার কথা তোমার কাচে পিরে জাবে তারমানি তুমি বাতিল হয়ে মরবা
Total Reply(0)
Motiar Rahman ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ২:০০ এএম says : 0
ভারতে যারা মুসলমানদের ঘরবাড়ি জ্বালিয়ে দিচ্ছে তারা বেছে বেছে ওহাবীদের ঘরবাড়িই মূলত জ্বালাচ্ছে। তারা বেছে বেছে আহলে হাদীস মসজিদে ভাংচুর করে মিনারে গেরুয়া পতাকা উড়াচ্ছে। তারা শুধু জামাতের কর্মী দেখে মেরে রক্তাক্ত করছে। তারা কওমি হুজুর দেখে দেখে হামলা করছে - ব্যাপারটি কি এমন? মোটেই না৷ তারা লুংগি খুলে শিশ্ন খতনা করা আছে কিনা নিশ্চিত হয়ে জান্তব উল্লাসে আক্রমণ চালাচ্ছে। তাদের কাছে কে আজহারি কে কুয়াকাটা, কে জামাতি কে বামাতি, এমনকি কে নাস্তিক কে লিবারেল তাও ফ্যাক্টর না। মুসলিম নাম হলেই মেরে ফেলছে। যে বক্তাগুলো প্রতিদিন মাইকে আজহারিকে, সিদ্দিকিকে গালাগালি করে, ওদেরকে প্লেনের টিকিট দিয়ে দিল্লিতে পাঠিয়ে দিন। দেখে আসুক পরিস্থিতি। দিল্লি তো আর দুরের দেশ নয়। তোমরা যারা এক ইসলামী দলের সমর্থক অন্য ইসলামী দলের বিরুদ্ধে বিদ্বেষ পোষণ করো তোমরাও একটু ভারত সফর করে আসতে পারো। তাহলে বুঝতে পারতে ওখানে কিভাবে নেমে এসেছে ভয়াবহ নির্মমতা। নিজের শত্রুমিত্র বুঝার শক্তি যাদের নাই আল্লাহ তাদেরকে খেলাফত দিতে যাবেন কেনো? ইসলামী বিপ্লব আর খেলাফত অযোগ্য লোকদের হাতে আল্লাহ দিবেন কেনো?
Total Reply(0)
Nannu chowhan ২৭ ফেব্রুয়ারি, ২০২০, ৭:০৯ এএম says : 0
Mosolman hishabe amar dabi ekhonoi shomoy jara mosolman hoye kono soto khato issue nia bibad korsen shei shojog kore ditese moloto ehudi o bidhormira, kintu varoter obosta dekheo ki apnader bidhormio shiddanto ki thik korte paren na? Dekhun varoter mosolmander opor ohabi shia sunni dekhe hamla korsena borong tara mosolmander kapor khule khotna dekhe hotta korse,apnra je vedaved korsen asholeto islam borudhi kaj.Ar nijeder hana hanir shojog nia eai desheo mosolmander opor rajatto korar khayesh iscon shib shena bjp rss bjp shorkarer eatai tar nomuna jodi bujhento valo na bujle nijeder bipod deke anben.Imaner bole soto khato issue bad dia eakotaboddo na hole Allah'r alokik shahajjo pabenna.jajakallahu khayer...
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন