ঢাকা, সোমবার, ১০ আগস্ট ২০২০, ২৬ শ্রাবণ ১৪২৭, ১৯ যিলহজ ১৪৪১ হিজরী

আন্তর্জাতিক সংবাদ

কে বেশি মানবিক!

এনডিটিভি | প্রকাশের সময় : ৫ জুন, ২০২০, ১২:০১ এএম

অন্তঃসত্ত¡া এক হাতিকে নৃশংস ভাবে হত্যা করা হয়েছে ভারতের কেরালা রাজ্যে। এই ভাইরাল ভিডিও চোখে দেখার পর স্তব্ধ হয়ে গেছে নেট বিশ্ব। সেই সঙ্গে প্রতিবাদে সরব হতেও দেখে গেছে বহু মানুষকে।
এক ক্ষুধার্ত হাতিকে আনারসের মধ্যে পটকা দিয়ে হত্যা করা হয়েছে। মারা গেছে তার গর্ভে থাকা সন্তানও। বহু সেলিব্রেটি থেকে শুরু করে সাধারণ মানুষ পর্যন্ত একটাই দাবি জানিয়েছে, যে অপরাধীকে গ্রেফতার করে শাস্তি দেওয়া হোক।

এদিকে মানুষের অমানবিকতাকে চোখে আঙুল দিয়ে দেখানোর জন্য ইতোমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছে একটি পুরানো ভিডিও। সেই ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে এক যুবক নদীতে ডুবে মারা যাওয়ার উপক্রম। আর তাকে বাঁচানোর তাগিদে নদীতে নেমে আসে হাতি। যুবককে নদীর কিনারায় নিয়ে যেতে হাতিটি সাহায্য করে।
আসলে ওই যুবক নদীতে সাঁতার কাটছিল। কিন্তু হাতির মনে হয়েছিল সে পানিতে ডুবে যাচ্ছে। নদীর তীর দিয়ে দল বেধে হাঁটলেও হাতিটি ছুটে আসে যুবককে বাঁচানোর তাগিদে।
কেরালায় ঘটে যাওয়া ঘটনার পর সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিও শেয়ার করে একটা বিষয়ই বোঝানোর চেষ্টা করা হয়েছে, মানব সন্তানকে হাতিরা কতটা ভালোবাসে। কিন্তু আমার আদৌ কি সেই ভালোবাসার যোগ্য?
বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ভিডিও শেয়ার করা হয়েছে। ভিডিও দেখে একটা কথাই মনে হবে, কার ভেতরে মানবিকতা আছে? হাতির না মানুষের? মানুষটি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছে হাতিকে।

নেচার অ্যান্ড এনিম্যাল নামক টুইটার পেজ থেকে শেয়ার করা হয়েছে ভিডিওটি। সেই সঙ্গে ক্যাপশনে লেখা হয়, ‘হস্তি শাবকের মনে হয়েছিল মানব সন্তান নদীতে ডুবে যাচ্ছে। তাই সে তাকে বাঁচানোর জন্য নদীতে নেমে পরে। আমার সত্যিই এদের যোগ্য নই।’
ভিডিও শেয়ার করা হয় গত বুধবার। গতকাল পর্যন্ত মাত্র ২৪ ঘণ্টায় চার লখের বেশি মানুষ দেখেছেন। সেই সঙ্গে তিন হাজারের বেশি লাইকস ও ভিডিও সহস্রাধিক বার রি-টুইট করা হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন