ঢাকা মঙ্গলবার, ১৩ এপ্রিল ২০২১, ৩০ চৈত্র ১৪২৭, ২৯ শাবান ১৪৪২ হিজরী

জাতীয় সংবাদ

যানজটে অসহনীয় ভোগান্তি

ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে সালেহপুর সেতুর গার্ডারে ফাটল মেরামতে ধীরগতি

সেলিম আহমেদ, সাভার থেকে | প্রকাশের সময় : ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১, ১২:০৬ এএম

ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের সাভারের আমিনবাজার সালেহপুর সেতুর নিচে এক পাশের (গার্ডার) বীমে ফাটল দেখা দেয়ায় মহাসড়কের এক পাশে যানচলাচল বন্ধ রয়েছে। এতে রাজধানীর সঙ্গে সাভার ও দেশের উত্তর ও দক্ষিণাঞ্চলের সড়ক যোগাযোগ ব্যাহত হওয়ায় যানবাহন চলাচলে ধীরগতি লক্ষ্য করা গেছে। এ ধীরগতির ফলে সৃষ্টি হচ্ছে তীব্র যানজটের। এ যানজট সময় ভেদে কয়েক কিলোমিটার পর্যন্ত ছাড়িয়ে যাচ্ছে। তাতে অসহনীয় ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে সাধারণ যাত্রীদের। দীর্ঘ এ যানজটের ফলে অনেকেই পায়ে হেঁটে গন্তব্যে যেতে বাধ্য হচ্ছেন।

সেতুর গার্ডারে ফাটল দেখা দেয়ার পরে গত ১৫জানুয়ারী শুক্রবার এই সেতুর সংস্কার কাজ শুরু হয়। দুই থেকে তিন সপ্তাহের মধ্যে সেতুটি সংস্কার কাজ শেষ হওয়ার কথা জানায় সওজ কর্মকর্তারা। কিন্তু সময় অতিবাহিত হলেও এখনও সংস্কার কাজ শেষ হয়নি। কর্তৃপক্ষ বলছে আরও সময় লাগবে।
সড়ক ও জনপথ বিভাগ তত্ত্বাবধাক প্রকৌশলী আতাউর রহমান বলেন, সেতুটির বয়স ৭০ বছরের বেশি হয়ে গেছে। সেতুর গার্ডারে (বীম) সামান্য ক্রাক পড়েছে। সেতুটির যেনো কোনো ক্ষতি না হয় সে জন্য আপাতত একপাশ যানবাহন চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে। আমাদের কর্মকর্তারা ইতিমধ্যে কয়েক দফা পরিদর্শন করেছেন। আমাদের বিশেষজ্ঞ টিম পরিদর্শন করেছে। তবে বর্তমানে সেতুটি যে অবস্থায় রয়েছে আমরা তা সংস্কার করে পুনরায় যানবাহন চলাচলের মত ব্যবস্থা করতে পারবো। সে জন্য আমরা বিষয়টি নিয়ে একাধিক মিটিং করেছি। আমরা চেষ্টা করছি দ্রুত সেতুটি যানচলারের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়ার। তাছাড়া সংস্কার করার জন্য যে জিনিসপত্র দরকার তা আনা হয়েছে। যেহেতু এটা দেশের একটি প্রধান সড়ক সেহেতু সড়ক ও জনপথের একটি ভাবমূর্তির বিষয়।

গতকাল বৃহস্পতিবারও গুরুত্বপূর্ণ এই মহাসড়কে গাড়ীর চাপ সামলাতে হিমশিম খেতে দেখা গেছে ট্রাফিক পুলিশ সদস্যদের। আবার ফাটল সেতুটি দেখার জন্য উৎসুক জনতারও ভিড় লেগেই রয়েছে।
সড়ক ও জনপদ বিভাগ (সওজ) এর কর্মকর্তারা বলেন, ঢাকা আরিচা মহাসড়কের সাভারের আমিনবাজারের সালেহপুর সেতুর নিচে আটটি বীমের মধ্যে চারটিতে ব্যাপক ফাটল দেখা দিয়েছে। সেই সাথে এক পাশ দেবেও গেছে।

সওজ কর্মকর্তারা আরও জানায়, মহাসড়কের সাভারের আমিনবাজারের সালেহপুরে তুরাগ নদের ওপর পূর্ব ও পশ্চিম পাশে পাশপাশি দুটি সেতু নির্মাণ করা হয়। পূর্ব পাশের সেতু ব্যবহার হয় রাজধানীতে যানবাহন ঢোকার জন্য। আর পশ্চিম পাশের সেতু ব্যবহার হয় রাজধানী থেকে যানবাহন বের হওয়ার জন্য। সেতুর নিচে এক পাশের (গার্ডার) বীমে ফাটলের কারণে গণবিজ্ঞপ্তি দিয়ে এক লেন বন্ধ করে সংস্কারের কাজ করছে ঢাকা সড়ক বিভাগ। এতে মহাসড়কটিতে যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। তবে যানজট নিরসনে কাজ করছে পুলিশ।
সড়ক ও জনপথ বিভাগের ঢাকা বিভাগের উপ-প্রকৌশলী মুহাম্মদ মারুফ হাসান বলেন, ঢাকা-আরিচা মহাসড়কের আমিনবাজার সালেহপুর সেতুর পুরাতন অংশের গার্ডারে বেশ কয়েকটি ফাটল দেখা দেয়। এরপর থেকে সেতুটি ঝুঁকিপূর্ণ ঘোষণা করে সব ধরণের যানবাহন চলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হয়। এ কারণে মহাসড়কের সেতুর ওই অংশে ঢাকামুখী একটি লেনে যানবাহন চলাচল বন্ধ আছে।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে সংস্কার কাজ শুরু করা হয়েছে। আমরা চাই যত দ্রুত সম্ভব সংস্কার কাজ শেষ করতে। তবে এ ধরনের কাজে একটু সময় বেশি লাগে।

প্রসঙ্গত; ঢাকা-আরিচা মহাসড়কটিতে মূলত দুই লেনে যানবাহন চলাচল করে। সেতুর ওই অংশে একটি লেন বন্ধ থাকায় সব যানবাহন অন্য একটি লেন দিয়ে চলাচল করছে। এ কারণে সেতু এলাকা থেকে মহাসড়কের উভয় পাশে প্রায় দেড় কিলোমিটার এলাকায় সবসময় যানজট লেগেই আছে। এতে যাত্রীদের ঘণ্টার পর ঘণ্টা মহাসড়কে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।
সাভার হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম মোস্তফা বলেন, পুলিশ প্রশাসন সবসময় মহাসড়ক যানজট মুক্ত রাখতে কাজ করছে।

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন