শনিবার, ২৮ মে ২০২২, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ২৬ শাওয়াল ১৪৪৩ হিজরী

ব্যবসা বাণিজ্য

৪ হাজার কোটি টাকা বাড়ল মূলধন

অর্থনৈতিক রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ১১ ডিসেম্বর, ২০২১, ১২:০২ এএম

কিছুটা ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতার মধ্য দিয়ে গেল সপ্তাহ পার করেছে দেশের শেয়ারবাজার। এতে প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) বাজার মূলধন চার হাজার কোটি টাকার ওপরে বেড়ে গেছে। এর মাধ্যমে টানা দুই সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন বাড়লো ১১ হাজার কোটি টাকার ওপরে।
গেল সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসের লেনদেন শেষে ডিএসইর বাজার মূলধন দাঁড়িয়েছে ৫ লাখ ৫৭ হাজার ১৯০ কোটি টাকা। যা তার আগের সপ্তাহের শেষ কার্যদিবসে ছিল ৫ লাখ ৫২ হাজার ৮৪০ কোটি টাকা। অর্থাৎ গেল সপ্তাহে ডিএসইর বাজার মূলধন বেড়েছে ৪ হাজার ৩৫০ কোটি টাকা। আগের সপ্তাহে বাজার মূলধন বাড়ে ৬ হাজার ৭৪৩ কোটি টাকা। এ হিসেবে দুই সপ্তাহে বাজার মূলধন বাড়ল ১১ হাজার ৯৩ কোটি টাকা। বাজার মূলধন বাড়া বা কমার অর্থ তালিকাভুক্ত প্রতিষ্ঠানগুলোর শেয়ার ও ইউনিটের দাম সম্মিলিতভাবে ওই পরিমাণ বেড়েছে বা কমেছে। অর্থাৎ বাজার মূলধন বাড়লে বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ করা অর্থের পরিমাণ বেড়ে যায়। একইভাবে বাজার মূলধন কমলে বিনিয়োগকারীদের বিনিয়োগ করা অর্থের পরিমাণ কমে যায়।
বাজার মূলধন বাড়ার পাশাপাশি গেল সপ্তাহে ডিএসইতে যে কয়টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম কমেছে বেড়েছে তার তার তিনগুণের বেশি। সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে লেনদেনে অংশ নেওয়া ২৭৮টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বেড়েছে। বিপরীতে দাম কমেছে ৭৯টির। আর ২৩টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। এতে গত সপ্তাহে ডিএসইর প্রধান মূল্য সূচক ডিএসইএক্স বেড়েছে ৪৮ দশমিক ৫৪ পয়েন্ট বা দশমিক ৭০ শতাংশ। আগের সপ্তাহে সূচকটি বাড়ে ৮৪ দশমিক ১১ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ২৩ শতাংশ।
প্রধান মূল্য সূচকের পাশাপাশি গেল সপ্তাহে বেড়েছে ইসলামী শরিয়াহ ভিত্তিতে পরিচালিত কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই শরিয়াহ্ সূচক। গত সপ্তাহজুড়ে সূচকটি বেড়েছে ১৬ দশমিক ৫৪ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ১৩ শতাংশ। আগের সপ্তাহে সূচকটি বাড়ে ১৬ দশমিক ৫৩ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ১৫ শতাংশ। বাছাই করা ভালো কোম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচক গেল সপ্তাহে কিছুটা কমেছে। গত সপ্তাহজুড়ে এই সূচকটি কমেছে ৩ দশমিক ৭৫ পয়েন্ট বা দশমিক ১৪ শতাংশ। আগের সপ্তাহে সূচকটি বাড়ে ৩৩ দশমিক শূন্য ৭ পয়েন্ট বা ১ দশমিক ২৭ শতাংশ।
গত সপ্তাহের প্রতি কার্যদিবসে ডিএসইতে গড়ে লেনদেন হয়েছে ১ হাজার ৬১ কোটি ৮০ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে প্রতিদিন গড়ে লেনদেন হয় ১ হাজার ৭ কোটি ৯৯ লাখ টাকা। অর্থাৎ প্রতি কার্যদিবসে গড় লেনদেন বেড়েছে ৫৩ কোটি ৮১ লাখ টাকা বা ৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ।
আর গত সপ্তাহজুড়ে ডিএসইতে মোট লেনদেন হয়েছে ৫ হাজার ৩০৯ কোটি ১ লাখ টাকা। আগের সপ্তাহে লেনদেন হয় ৫ হাজার ৩৯ কোটি ৯৯ লাখ টাকা। সে হিসাবে মোট লেনদেন বেড়েছে ২৬৯ কোটি ২ লাখ টাকা বা ৫ দশমিক ৩৪ শতাংশ। গত সপ্তাহে ডিএসইতে টাকার অঙ্কে সব থেকে বেশি লেনদেন হয়েছে বেক্সিমকোর শেয়ার। সপ্তাহজুড়ে কোম্পানিটির শেয়ার লেনদেন হয়েছে ৪৯৬ কোটি ৯৪ লাখ ৩৪ হাজার টাকা, যা মোট লেনদেনের ৯ দশমিক ৩৬ শতাংশ। দ্বিতীয় স্থানে থাকা ওয়ান ব্যাংক শেয়ার লেনদেন হয়েছে ২১৩ কোটি ৪৩ লাখ ৮৩ হাজার টাকা। ১৩৭ কোটি ১৫ লাখ ৭৮ হাজার টাকা লেনদেনের মাধ্যমে তৃতীয় স্থানে রয়েছে জিএসপি ফাইন্যান্স। এছাড়া লেনদেনের শীর্ষ দশ প্রতিষ্ঠানের তালিকায় রয়েছে-ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক, আইএফআইসি ব্যাংক, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, জিনেক্স ইনফোসিস, ওরিয়ন ফার্মা, সেনা কল্যাণ ইন্স্যুরেন্স এবং পাওয়ার গ্রিড কোম্পানি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন