বৃহস্পতিবার , ৮ জুন ২০২৩, ২৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯, ১৮ যিলক্বদ ১৪৪৪ হিজরী

সারা বাংলার খবর

ভোলায় বিএনপির পদযাত্রায় আ.লীগের হামলার অভিযোগ

ভোলা জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩, ৮:০৪ পিএম | আপডেট : ৮:৫০ পিএম, ১১ ফেব্রুয়ারি, ২০২৩

কেন্দ্র ঘোষিত কর্মসুচী অনুযায়ী
ভোলায় ইউনিয়ন পর্যায়ে বিএনপির শান্তিপূর্ণ পদযাত্রা কর্মসূচিতে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা হামলা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। জেলার সদর উপজেলা ও বোরহানউদ্দিন উপজেলায় এ হামলা ঘটনা ঘটে।
শনিবার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ২টা পর্যন্ত বিএনপির ৩ নেতাকর্মীকে ভোলা সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।তবে হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা বলেছেন, ইউনিয়ন পর্যায়ে বিএনপির কোনো পদযাত্রা নেই।
ভেলুমিয়া ইউনিয়ন স্বেচ্ছাসেবক দলের সহ-সভাপতি মো. ফারুক গাজী জানান, সকাল সাড়ে ১০টার দিকে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের কয়েকজন নেতাকর্মী তাকে ভেলুমিয়া বাজারে এলোপাতাড়ি মারধর করে। এতে সে গুরুতর আহত হলে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে ভোলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়।
বোরহানউদ্দিন উপজেলা বিএনপির যুগ্ন সম্পাদক সরোয়ার আলম ও সাংগঠনিক সম্পাদক নাসিমের কাজি জানান পক্ষিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন সর্দার ও সাবেক চেয়ারম্যান নাগর হাওলাদারের লোকজন সকাল ১০টার দিকে ইউনিয়নের নয়া মিয়ার হাট বাজারের তাঁর ঔষধ ফার্মেসিতে হামলা চালিয়ে তাকে ও তাঁর ছেলেকে বেধড়ক মারধর করে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা তাকে কুপিয়ে জখম করে। তাঁর মাথায় ৪৮টি সেলাই করা হয়েছে।
একই অভিযোগ করেছেন পক্ষিয়া ইউনিয়ন যুবদলের সাবেক সভাপতি কাজী মাওলানা মোসলেউদ্দিন। তিনি জানান, ইউনিয়ন পর্যায়ে বিএনপির শান্তিপূর্ণ পদযাত্রা বিনষ্ট করতে সরকার দলীয় নেতা-কর্মীরা তাকেসহ ৭-৮ জনকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করেন এবং নগদ টাকা ও মোটরসাইকেল ছিনিয়ে নেন।
এ ঘটনায় বোরহানউদ্দিন উপজেলার পক্ষিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন সর্দারকে একাধিকবার ফোন করেও তাকে পাওয়া যায়নি।
ভেলুমিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আব্দুস সালাম মাষ্টার জানান, বিএনপির উপর কোনো হামলার ঘটনা ঘটেনি। ভেলুমিয়া ইউনিয়নে বিএনপির কোনো পদযাত্রা নেই বলেও জানান তিনি। এদিকে শনিবার দুপুরে ভোলা সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন বিএনপির নেতাকর্মীদের দেখতে যান ভোলা জেলা বিএনপির সদস্য সচিব আলহাজ্ব রাইসুল আলম ও সোপান মিয়া,যুবদল নেতা জামাল সহ নেতাকর্মীরা । এসময় তিনি বলেন, সরকার দলীয় নেতা-কর্মীরা বিএনপির ইউনিয়ন পর্যায়ের শান্তিপূর্ণ পদযাত্রা বিনষ্ট করার লক্ষ্যে পূর্বপরিকল্পিতভাবে বিএনপির নেতাকর্মীদের উপর অতর্কিত হামলা চালিয়েছে। সরকার দলীয় লোকজনের কারণে বিএনপি ইউনিয়ন পর্যায়ে শান্তিপূর্ণ পদযাত্রা করতে পারছে না।
তিনি আরও জানান, শনিবার সকালে ধনিয়া ইউনিয়নে বিএনপির একটি মিছিলে আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা প্লাস্টিকের লাঠি নিয়ে হামলা চালিয়েছে। এ পর্যন্ত জেলায় ৮০ জন বিএনপি নেতাকর্মী সরকার দলীয় নেতা-কর্মীদের হামলায় আহত হয়েছেন বলে তিনি দাবি করেন।
ভোলা সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহীন ফকির জানান, বিএনপির পদযাত্রায় সদর উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। যেকোনো ধরনের অপ্রতিকর ঘটনা এড়াতে পুলিশি টহল জোরদার করা হয়েছে। তবে দুপুর আড়াইটার পর্যন্ত সদর উপজেলার কোথাও কোনো ধরনের অপ্রতিকর ঘটনা ঘটেনি।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন