ঢাকা, বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯, ০৬ ভাদ্র ১৪২৬, ১৯ যিলহজ ১৪৪০ হিজরী।

সারা বাংলার খবর

পিরোজপুরে ৮ম শ্রেণির ছাত্রের ধর্ষণে অন্তঃসত্ত্বা ৫ম শ্রেণির ছাত্রী

পিরোজপুর জেলা সংবাদদাতা | প্রকাশের সময় : ১ জুলাই, ২০১৯, ৬:৫৭ পিএম

পিরোজপুরের নাজিরপুরে ৮ম শ্রেণির ছাত্রের ধর্ষণের শিকার হয়ে চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা ৫ম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী (১২)। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার শ্রীরামকাঠি ইউনিয়নের দরিয়াবাদ এলাকায়। এ ঘটনায় রোববার রাতে ওই শিক্ষার্থীর মামা বাদী হয়ে একই এলাকার শুধাংশু হালদারের ছেলে সুদেব হালদারের বিরুদ্ধে নাজিরপুর থানায় একটি মামলা করেন। অভিযুক্ত সুদেব হালদার উপজেলার খেজুরতলা মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণির ছাত্র।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, ধর্ষণের শিকার ওই মেয়েটির বাড়ি উপজেলার মালিখালী ইউনিয়নের সাচিয়া গ্রামে। ছোট বোনকে নিয়ে মা-বাবা ভারতে বসবাস করায় মেয়েটি উপজেলার দরিয়াবাদ এলাকায় মামার বাড়ি বসবাস করে স্থানীয় একটি স্কুলে ৫ম শ্রেণিতে লেখাপড়া করে। একই গ্রামের শুধাংশু হালদারের ছেলে সুদেব হালদার সাত মাস ধরে তাকে ফুসলিয়ে ধর্ষণ করে। এতে মেয়েটি চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। এ ঘটনা প্রকাশ করলে মেয়েটিকে হত্যা ও লাশ গুম করা হবে বলে হুমকি দেয় ধর্ষক সুদেব হালদার।

এদিকে মেয়েটি এ ঘটনা গোপন করলেও প্রতিবেশীদের চোখ আড়াল করতে পারেনি। প্রতিবেশী নারীরা মেয়েটির শারীরিক ও আচরণগত পরিবর্তন দেখতে পেয়ে তার নানিকে বিষয়টি জানায়। পরে মেয়েটি নানির কাছে ধর্ষণের কথা প্রকাশ করে।

নাজিরপুর থানার ওসি মো. মুনিরুল ইসলাম মুনির জানান, ৫ম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে থানায় মামলা হয়েছে। শারীরিক পরীক্ষার জন্য তাকে পিরোজপুর সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
খন্দকার শওকত আলী ২ জুলাই, ২০১৯, ৩:০৮ পিএম says : 0
পৃথিবীকে আমরা কোন দিকে নিয়ে যাচ্ছি ! দুজনের বয়স দেখে কিভাবে কি মন্তব্য করবো? মেয়েটি একেবারেই নাবালক তাই ভাবনা ঐ মেয়েটি কিভাবে গর্ভবতী হতে পারে সে প্রশ্ন অবান্তর নয়। তবে যেভাবেই হোক এখন বিষয়টি নিয়ে প্রশাসনের সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে হবে । তবে মেয়েটির জন্য খুব কষ্ট হয়। আল্লাহ্ তুমি মেয়েটির প্রতি তুমি সদয় হও।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

এ বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন