ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৫ অক্টোবর ২০১৯, ৩০ আশ্বিন ১৪২৬, ১৫ সফর ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

শুরুতেই চ্যালেঞ্জের মুখে রিয়াল-জুভেন্টাস

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯, ১২:১৭ এএম

ইউরোপিয়ান লিগ মৌসুম শুরু করার আগে একটা সুখবর পেলেন নেইমার ও পিএসজির ফুটবল সমর্থকরা। উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ব্রাজিলিয়ান তারকার নিষেধাজ্ঞা কমিয়ে তিন ম্যাচ থেকে দুই ম্যাচে নামিয়ে আনা হয়েছে।

নেইমার ছাড়াও আজ চ্যাম্পিয়ন্স লিগে নিজেদের প্রথম ম্যাচে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে পিএসজির আক্রমণভাগের অন্য দুই তারকা কিলিয়ান এমবাপে ও এডিনসন কাভানিকে না পাওয়ার বিষয়টিও নিশ্চিত ছিল আগে থেকেই। চোটের কারণে দুজনেই আছেরন মাঠের বাইরে। একই কারণে ফরাসি চ্যাম্পিয়নদের হয়ে খেলতে পারছেন না দুই তরুণ ডিফেন্ডার ফ্রান্সের কলিন দাগবা ও জার্মানির থিলো কেহরার এবং জার্মান মিডফিল্ডার হুলিয়ান ড্রক্সলার। মৌসুম শুরুর ম্যাচেই কঠিন চলেঞ্জের মুখে পড়তে হচ্ছে কোচ টমাস টুখেলকে।

অবশ্য পিএসজির চেয়ে চোটের থাবা রিয়াল শিবিরেও কম নয়। বার্নাব্যু শিবিরে চোটগ্রস্থ খেলোয়াড়ের তালিকায় সর্বশেষ যুক্ত হয়েছেন লেফট ব্যাট মার্সেলো। আগে থেকেই ভালভার্দে, ইসকো, মদরিচ ও দিয়াজের না থাকাটা নিশ্চিত ছিল। তাছাড়া নিষেধাজ্ঞার কারণে দলের সঙ্গে প্যারিস সফরে নেই নাচো ও অধিনায়ক সার্জিও রামোস। তার মানে ব্রাজিলিয়ান ২১ বছর বয়সী ডিফেন্ডার এদের মিলিতোর আজ ক্লাবের হয়ে অভিষেক হয়ে যেতে পারে। মিডফিল্ডার কাসিমিরো, ক্রুস ও হামেস রদ্রিগুয়েজের সামনে আক্রমণভাগে থাকতে পারেন হ্যাজার্ড, বেল ও বেনজেমা ত্রয়ী।
দুই দলের জন্যই ম্যাচটি গুরুত্বপূর্ণ। এই দুই দলের মধ্য থেকেই হয়ত নির্বাচিত হবে গ্রæপের সেরা দল। গ্রæপের অপর দুই দল ক্লাব ব্রæগ ও গালাতাসারাই তুলনামূলক অনেক খর্বশক্তির দল। সুতরাং এই ম্যাচে জিতে দুই দলই এক ধাপ এগিয়ে থাকতে চাইবে।

বিশেষ করে রিয়ালের জার্সিতে প্রতিটা ম্যাচের গুরুত্ব ইতোমধ্যে বুঝে গেছেন সর্বশেষ দলবদলের বাজারে চেলসি থেকে বার্নাব্যু শিবিরে যোগ দেওয়া হ্যাজার্ড। ইংল্যান্ডের সর্ব স্তরের মানুষ ফুটবলকে, ক্লাবকে ভালোবাসলেও রিয়ালের মত তারা অন্ধ ভক্ত না বলেও জানান এই বেলজিয়ান তারকা। জানেন সমর্থকদের প্রতি তার প্রত্যাশার বিষয়টিও, ‘যখন আপনি রিয়াল মাদ্রিদে, যদিও এটি আমার প্রথম বছর, ভক্তদের সাথে কথা বলে বুঝেছি, তারা সব সময় আপনার কাছে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের আশা করবে।’

রিয়াল সম্প্রতি খুব একটা ছন্দে আছে বলা যাবে না। ঘরোয়া লিগ মৌসুম তারা শুরু করেছে হার দিয়ে। পাঁচ ম্যাচে জয় মাত্র দুটি। সর্বশেষ ম্যাচে তারা লেভান্তেকে হারায় ৩-২ গোলে। আক্রমণভাগের সেরা তিন তারকা না থাকায় পিএসজির মাঝেও প্রতিপক্ষকে কাঁপিয়ে দেয়ার সেই তেজ তাদের মধ্যে দেখা যাচ্ছে না। যদিও পাঁচ লিগ ম্যাচের চারটিতেই জিতেছে ফ্রেঞ্চ চ্যাম্পিয়নরা। পিএসজির হয়ে গত ম্যাচে অভিষেক হওয়া আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড মাউরো ইকার্দিকে এই ম্যাচে আক্রমণভাগে দেখা যেতে পারে।
পিএসজির-রিয়ালের মত গ্রæপ পর্বের শুরুতেই কঠিন চলেঞ্জের মুখে পড়েতে যাচ্ছে লা লিগায় গতবারের রানার্স আপ অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ ও সেরি আ চ্যাম্পিয়ন জুভেন্টাস। আজ রাতে মাদ্রিদের এস্তাদিও মেত্রোপলিতানোয় মুখোমুখি হবে তারা। এই গ্রæপ থেকেও সম্ভব্য সেরা দল বাছাই হবে এই দুই দলের মধ্য থেকেই। গ্রæপের অপর দুই দল জার্মানির বায়ার লেভারকুসেন ও রাশিয়ার লোকোমতিভ মস্কো।
ইউরোপিয়ান লড়াইয়ে এ পর্যন্ত চার বার মুখোমুখি হয়েছে জুভেন্টাস ও অ্যাটলেটিকো। সেখানে ২-১ ব্যবধানে এগিয়ে অ্যাটলেটিকো। গত মৌসুমে নক আউট পর্বে অ্যাটলেটিকো থেকে পরাজয় নিয়ে ফিরলেও ঘরের মাঠে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর নৈপূণ্যে শেষ হাসি হেসেছিল জুভেন্টাস। মৌসুমে অবশ্য কোন দলই চেনা ছন্দে নেই। ঘরোয় লিগে টানা তিন ম্যাচে জয় পাওয়ার পর সর্বশেষ ম্যাচে অ্যাটলেটিকো হেরেছে রিয়াল সোসিয়েদাদের বিপক্ষে। সেরি আ লিগে পাঁচ ম্যাচে দুই জয় পাওয়া জুভেন্টাস সর্বশেষ ম্যাচ গোলশূন্য ড্র করে ফিওরেন্তিনার বিপক্ষে। ঘরের পুরো শক্তির দলই পাচ্ছেন অ্যাটলেটিকো কোচ ডিয়াগো সিমিওনে। মাউরিসিও সারি পাচ্ছেন না পিয়ানিচ ও ডগøাস কস্তাকে।
একই রাতে মাঠে নামবে প্রিমিয়ার লিগ চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার সিটি ও বুন্দেসলিগা চ্যাম্পিয়ন বায়ার্ন মিউনিখ। ইউরোপিয়ান প্রতিযোগিতায় টানা কয়েক দফা ব্যর্থতার পর সব ফাক-ফোকর বন্ধ করে এবার সিটির কোচ হিসেবে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ শিরোপা ঘরে তোলার দিকে মনোযোগ দিতে চান পেপ গার্দিওলা। ইউক্রেনের দল শাখতার দোনেৎস্কের বিপক্ষে তাদেরই মাঠে ম্যাচ দিয়ে ইউরোপীয় মিশন শুরু করতে যাচ্ছেন সাবেক বার্সেলোনা কোচ। একই সময় ঘরের মাঠে বায়ার্ন লড়বে রেড স্টার বেলগ্রেডের বিপক্ষে।

আজ রাতে মুখোমুখি
শাখতার-ম্যান সিটি, রাত ১টা
পিএসজি-রিয়াল মাদ্রিদ, রাত ১টা
অলিম্পিয়াকোস-টটেনহাম, রাত ১০:৫৫টা
অ্যাটলেটিকো-জুভেন্টাস, রাত ১টা
ক্লাব ব্রæগ-গালাতাসারাই, রাত ১০:৫৫টা
বায়ার্ন-রেড স্টার, রাত ১টা

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন