ঢাকা, বুধবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ১৩ ফাল্গুন ১৪২৬, ০১ রজব ১৪৪১ হিজরী

খেলাধুলা

‘অদৃশ্য চাপ আছে বাংলাদেশের উপর’

সমালোচনা উষ্কে দিলেন সোয়েব আকতার

স্পোর্টস ডেস্ক | প্রকাশের সময় : ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১২:০১ এএম

প্রথম দিকে না হওয়া নিয়ে চলছিল দু’পক্ষের কথার যুদ্ধ, অনেক নাটকের পর যা-ও বাংলাদেশ-পাকিস্তান সিরিজ আলোর মুখ দেখছে। তবুও থেমে নেই তির্যক বাক্য বিনিময়। প্রথমে যেখানে একটি টেস্ট খেলতে যেতে আপত্তি ছিল, পরে সেই সফরেই তিন মাস ধরে তিন ধাপে তিনটি ফরম্যাটেই খেলার যৌক্তিকতা খুঁজে পাচ্ছেন না বাংলাদেশের অনেকেই। এবার সেই সমালোচনা আরেকটু উষ্কে দিলেন পাকিস্তানের স্পিডস্টার সোয়েব আকতার।

বহুদিন শুধু টি-টোয়েন্টি খেলে ফেরার কথা বলা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড শুধু যে টেস্টই খেলবে তাই না, মাঝে একটা ওয়ানডে খেলে টেস্টের প্রস্তুতিও নেবে। তবে এ কাজগুলো তিনটি ভিন্ন সফরে করবে বাংলাদেশ। তিন মাসে বাংলাদেশের এভাবে তিনবার পাকিস্তানে যাওয়ার পরিকল্পনা নিয়ে প্রশ্ন উঠেছে। শোয়েব আখতার অবশ্য বলছেন, বাংলাদেশের এভাবে পাকিস্তান সফরের পেছনে বাইরের কারও হাত আছে।

সাবেক ফাস্ট বোলার ইদানীং মতামত জানাতে ইউটিউবকেই বেছে নিয়েছেন। গতপরশু রাতে নিজের ইউটিউব চ্যানেলেই বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে নিজের মতামত জানিয়েছেন ক্রিকেটের সবচেয়ে দ্রæতগতির বোলার। সেখানেই তার দাবি বাংলাদেশের কোনো দোষ নেই। ‘নাম বলা যাবে না’ এমন কিছু শক্তির চাপেই নাকি বাংলাদেশ এভাবে পাকিস্তান সফরের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। নিজের চ্যানেলে শোয়েব বলেছেন, ‘পাকিস্তানে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট ফেরানোর জন্য যে জোর চেষ্টা চালাচ্ছে তাতে পিসিবিকে কৃতিত্ব দিতেই হবে। আমি মানুষকে বলব বাংলাদেশের ব্যাপারে বাজে কথা না বলতে। তারা আসলে এমন করেছে অদৃশ্য চাপে পড়ে। এসব চাপ নিয়ে আমি প্রকাশ্যে কিছু বলতে পারব না। বিসিবিকে অনেক রাজনৈতিক পরিস্থিতি ও অনেক চাপ সামলাতে হয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশের সফরের জন্য পাকিস্তানের এশিয়া কাপ আয়োজনের সুযোগ ছেড়ে দেওয়াটা আমার কাছে অগ্রহণযোগ্য মনে হয়েছে।’

২০২০ টি-টোয়েন্টি এশিয়া কাপ আয়োজনের দায়িত্ব পাকিস্তান পেয়েছিল। কিন্তু এখন শোয়েবের দাবি এ টুর্নামেন্টের আয়োজক বাংলাদেশ হওয়ারই সম্ভাবনা বেশি, ‘বাংলাদেশের পাকিস্তান সফর নিয়ে অনেক গুঞ্জন শোনা যাচ্ছে। অনেকেই বলছে বাংলাদেশ যা চেয়েছে সেটাই পেয়েছে। অনেকে বলছে এশিয়া কাপ আয়োজনের অধিকার আদায় করে তার বদলে পাকিস্তান আসতে রাজি হয়েছে বাংলাদেশ। এর ফলে পাকিস্তানে নয়, বাংলাদেশে হবে পরের এশিয়া কাপ।’

বাংলাদেশের এভাবে তিনবার পাকিস্তান যাত্রা ঠিক মেনে নিতে পারছেন না শোয়েব। তার ধারণা, বারবার সফর করেক্ষুদ্র সময়ের জন্য পাকিস্তানে থাকা নিশ্চিত করে পাকিস্তানকে অনিরাপদ দেখানোর চেষ্টা করা হচ্ছে, ‘পাকিস্তান খুবই নিরাপদ একটি দেশ। যে নিরাপত্তা দেওয়া হচ্ছে সেটা দারুণ। অনেক ক্রিকেটারই পাকিস্তানের নিরাপত্তার প্রশংসা করেছে। এভাবে বিচ্ছিন্নভাবে সফর করার কোনো মানে দেখছি না আমি। তবু তো ভালো বাংলাদেশ আসছে। কিন্তু এমন ভাগে ভাগে সফর করতে আসা বিশ্বের কাছে সঠিক বার্তা দিচ্ছে না।’

সব শেষে দৃষ্টিটা ক্রিকেটে ফিরিয়েছেন শোয়েব। তার ধারণা সাকিব-মাশরাফিবিহীন বাংলাদেশ দলই নাকি পাকিস্তানের কঠিন পরীক্ষা নেবে, ‘এটা খুব কঠিন সিরিজ হবে। এ সিরিজে হার কোনোভাবেই মেনে নেওয়া হবে না। একটা হার মানেই পুরো দলের গঠন নিয়ে প্রশ্ন উঠে যাবে। পাকিস্তানের উচিত সিরিজের জন্য ভালোভাবে প্রস্তুত হওয়া।’

 

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (6)
Umed Raja ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১:১৭ এএম says : 0
শ্রীলঙ্কা যদি পাকিস্তানে গিয়ে খেলতে পারে, বাংলাদেশ কেন নয়? ওরা দুইবার গিয়েছে, আমরাও দুইবার যাবো।
Total Reply(0)
Zengiz Ilamaz ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১:১৮ এএম says : 0
বাঙ্গালদের চাই ক্যাসিনোতে গিয়ে ভাত খাওয়ার হোটেলসহ শপিং সাফারি সুবিধা। রাওয়ালপিন্ডির ক্যাসিনো আরেকটু উন্নত হলেই গদাখামাসু সপরিবারে যাবে
Total Reply(0)
Kawsar Ahmed Kawsar ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১:১৮ এএম says : 0
অবশ্যই ভারতের হাত আছে । কারন ভারতের উপদেশেই বাংলাদেশ সরকার চলে ।
Total Reply(0)
Md Hossain ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১:১৯ এএম says : 0
অন্য যে কোন দেশের চেয়ে পাকিস্তান অনিরাপদ নয়,তাই এই মুহুর্তে আমাদের ক্রিকেট দলের উচিৎ পাকিস্তান কে সাহায্য করা, আমাদের ক্রিকেট দলের সিনিয়র প্লেয়াররা নিজেদের মুই কি হনুরে ভাবা উচিত না।ওরা এখনো বিপিএল খেলে, বিপিএল এর আকর্ষণ বাড়িয়ে দিচ্ছে। কই তোমাদের দাদারা তো কোনদিন ও এলো না।পাকিস্তানের প্রতি ক্রতজ্ঞতা থাকা উচিৎ।
Total Reply(0)
Rafique Al Islam ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ১:২০ এএম says : 0
টি টোয়েন্টি খেলতে পারলে টেস্ট খেললে সমস্যা কই?যতসব ফালতু ডিসিশন। এ মুহূর্তে বাংলাদেশের পাকিস্তানের সাথে বেশি বেশি ম্যাচ খেলা উচিৎ।
Total Reply(0)
Saiful Islam ১৭ জানুয়ারি, ২০২০, ৬:৩৮ পিএম says : 0
ইন্ডিয়া চায় না পাকিস্তানে কোন আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলা হোক, তাই বাংলাদেশকে খেলতে যেতে নিষেধ করেছিলো, বাংলাদেশ চলে ইন্ডিয়ার প্রেসক্রিপশনে তাই এতদিন এমন নাটক করছে বাংলাদে, তবে বাংলাদেশের বোজা উচিৎ বাংলাদেশের ক্রিকেটে টেস্ট এস্টাটাস পেতে পাকিস্তান সাহায্য করেছিলো।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

গত ৭ দিনের সর্বাধিক পঠিত সংবাদ

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন