ঢাকা বৃহস্পতিবার, ২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৯ আশ্বিন ১৪২৭, ০৬ সফর ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

বাফুফে নির্বাচন নিয়ে সিদ্ধান্ত ঈদের পর!

জাহেদ খোকন | প্রকাশের সময় : ২৪ জুলাই, ২০২০, ৬:৫৬ পিএম

প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের প্রভাব এখনো আগের মতই আছে বাংলাদেশে। তারপরও মানুষ স্বাভাবিক হওয়ার চেষ্টা করছে। একমাত্র শিক্ষাঙ্গন ছাড়া দেশের অফিস-আদালত, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সব স্বাভাবিক গতিতেই চলছে। খেলা মাঠে না গড়ালেও ক্রীড়াঙ্গনও চেষ্টায় আছে সচল হতে। বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনকে অনুসরণ করে ইতোমধ্যে বাংলাদেশের ক্রিকেটাররা ব্যক্তিগত অনুশীলনও শুরু করেছেন। জাতীয় দলের ফুটবলাররা অপেক্ষার প্রহর গুণছেন কবে ক্যাম্প শুরু হবে? অবশ্য এরই মধ্যে বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) ঘোষণা দিয়েছে গাজীপুরের সারা রিসোর্টে ৭ আগস্ট শুরু হবে জাতীয় দলের ক্যাম্প। কাতার বিশ্বকাপ ও এশিয়ান কাপ বাছাইপর্বে আফগানিস্তানের বিপক্ষে হোম ম্যাচকে সামনে রেখে ডাক্তারদের পরামর্শ অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরিচালিত হবে ১৪ দিনের এই ক্যাম্প। আগামী ৮ অক্টোবর সিলেট জেলা স্টেডিয়ামে বাছাইপর্বে নিজেদের পঞ্চম ম্যাচে আফগানদের মোকাবেলা করবে জামাল ভূঁইয়া বাহিনী। সবকিছুই যখন ঠিকঠিক, তখন বাফুফের নির্বাচন আয়োজন করতে বাধা কোথায়?

দেশের ফুটবলের অভিভাবক সংস্থার নির্বাচিত কমিটির মেয়াদ শেষ হয়েছে ৩০ এপ্রিল। ফিফার নির্দেশে পরের দিন থেকেই বাফুফের কার্যনির্বাহী কমিটির মেয়াদ বেড়েছে। নতুন কমিটি নির্বাচিত না হওয়া পর্যন্ত বর্তমান কমিটি দায়িত্ব চালিয়ে যেতে পারবে- ফিফার এমন নির্দেশে কাজী সালাউদ্দিন এন্ড কোং স্বস্তি পেলেও হতাশ অন্যপক্ষ। ফুটবলবোদ্ধাদের মতে অতিরিক্ত সময়ে দায়িত্ব পালনের জন্য বিশ্ব ফুটবলের অভিভাবক সংস্থার সনদ পাওয়ায় নির্বাচন নিয়ে এখন আর মাথা ব্যথা নেই বাফুফের বর্তমান কমিটির। তাই কবে নির্বাচন হবে তা অনিশ্চিত। যদিও এই নির্বাচনের পূর্ব তারিখ ছিল ২০ এপ্রিল। কিন্তু প্রাণঘাতি করোনাভাইরাসের কারণে তা স্থগিত করা হয়। অভিযোগ উঠেছে নির্বাচন নিয়ে দীর্ঘসূত্রিতা করা হচ্ছে। তবে তা মানতে নারাজ বাফুফের তিনবারের সিনিয়র সহ-সভাপতি আবদুস সালাম মুর্শেদী। তার কথায়, ‘দায়িত্ব দীর্ঘায়িত করার কোনো উদ্দেশ্য আমাদের নেই। আমরা তো নির্ধারিত সময়ের আগেই ভোটের তারিখ ঠিক করেছিলাম। স্থগিত করতে বাধ্য হয়েছি সবার দাবি আর পরিস্থিতির কারণে। পরিস্থিতি অনুকূলে আসলেই দ্রæত নির্বাচনের মাধ্যমে নতুন কমিটিকে দায়িত্ব বুঝিয়ে দেয়াই আমাদের লক্ষ্য।’

কবে নাগাদ হতে পারে বাফুফে নির্বাচন? এমন প্রশ্নে সালাম মুর্শেদী বলেন, ‘নির্বাচনের আগে কয়েক ধাপ প্রক্রিয়া আছে। যার অন্যতম হলো নির্বাহী কমিটির সভা ডেকে নির্বাচনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়া। কয়েকদিন পরই ঈদুল আযহা। মূলত কোরবানির ঈদের পর করোনাভাইরাস পরিস্থিতি কি দাঁড়ায় তার ওপর অনেক কিছু নির্ভর করবে। জাতীয় সংসদের উপ-নির্বাচন আর বাফুফের নির্বাচন কিন্তু এক নয়। জাতীয় নির্বাচনে সাংবিধানিক বাধ্যবাধকতা আছে। কিন্তু বাফুফের নির্বাচনে তা নেই। ফিফা-এএফসি চাইলে এই নির্বাচনের সময় বাড়িয়ে দিতে পারে।’

নির্বাচন নিয়ে বর্তমান কমিটির ভাবনা কি? এ নিয়ে বাফুফের সিনিয়র সহ-সভাপতি বলেন,‘আমরা ঈদুল আযহার কয়েকদিন পর বাফুফের নির্বাহী কমিটির সভা ডাকব। সেই সভা ভার্চুয়াল নয়, ফিজিক্যালি হবে। কারণ গুরুত্বপূর্ণ সভা সামনাসামনি বসে করাই ভালো। ঈদের পর করোনাভাইরাসের পরিস্থিতি কি দাঁড়ায় তা দেখে এবং সরকারের অনুমতি নিয়ে আমরা নির্বাচন আয়োজনের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেবো।’ তবে এই নির্বাচন ১৫ সেপ্টেম্বর থেকে অক্টোবরের মধ্যেই হয়ে যেতে পারে বলে আভাস দেন সালাম মুর্শেদী।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন