ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ জুন ২০২১, ০৮ আষাঢ় ১৪২৮, ১০ যিলক্বদ ১৪৪২ হিজরী

খেলাধুলা

আবাহনীকে বাদ দিয়েই এএফসি কাপের প্লে-অফ!

স্পোর্টস রিপোর্টার | প্রকাশের সময় : ৩০ এপ্রিল, ২০২১, ৭:৪৬ পিএম

শেষ পর্যন্ত ঢাকা আবাহনী লিমিটেডকে বাদ দিয়েই এএফসি কাপের প্লে-অফ পর্ব চালিয়ে নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছে এশিয়ান ফুটবল কনফেডারেশন (এএফসি)। শুক্রবার এ সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত নিজেদের অফিসিয়াল ওয়েবসাইটে প্রকাশ করেছে এএফসি। যদিও এ বিষয়ে আবাহনী এবং বাংলাদেশ ফুটবল ফেডারেশন (বাফুফে) কিছুই জানে না। তবে আবাহনী বারবার মালদ্বীপের ক্লাব ঈগলসের বিপক্ষে ম্যাচটি মালেতে গিয়ে খেলার আগ্রহ প্রকাশ করলেও অপারগতা জানায় দ্বীপ দেশটির ফুটবল ফেডারেশন। কিন্তু তারা ঠিকই ভারতের ক্লাব বেঙ্গালুরু এফসিকে আতিথেয়তা দিচ্ছে। এএফসির সিদ্ধান্ত মতে আগামী ১১ মে মালেতে অনুষ্ঠিত হবে ঈগলস ক্লাব ও বঙ্গালুরু এএফসির মধ্যকার ম্যাচটি।

এশিয়ান ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা এএফসি গঠিত কোভিড-১৯ সাব-কমিটি আবাহনী ছাড়াও আরও কয়েকটি ক্লাবকে তাদের টুর্নামেন্ট থেকে বাদ দিয়েছে। ঈগলসের বিপক্ষে ম্যাচটির আয়োজক ছিল আবাহনী। ম্যাচটি ঢাকায় হওয়ার কথা ছিল গত ১৪ এপ্রিল। কিন্তু তখন বাংলাদেশে লকডাউন ঘোষণা হলে ম্যাচটি ঘিরে তৈরি হয় অনিশ্চয়তা। শেষ পর্যন্ত আবাহনী ৫ মে ঢাকায় ম্যাচ আয়োজন করতে চেয়েছিল। এমনকি ৮ মে বেঙ্গালুরুর ম্যাচটি আয়োজনের আগ্রহও দেখিয়েছিল। কিন্তু এএফসি আবাহনীকে বাদ দিয়েছে ক্লাবটির সঙ্গে কোনো আলোচনা ছাড়াই।

এএফসি শুক্রবার তাদের ওয়েবসাইটে লিখেছে, ‘লকডাউন, ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞার জন্য আবাহনী ম্যাচ আয়োজনের নির্ধারিত সময়সীমা মিস করেছে। এজন্য মালদ্বীপের ক্লাব ঈগলসকে পরবর্তী প্লে-অফে ভারতের ব্যাঙ্গালুরুর বিপক্ষে খেলার জন্য মনোনীত করা হয়েছে। ওই ম্যাচটি ১১ মে মালদ্বীপের মালেতে অনুষ্ঠিত হবে।’ এএফসির এমন সিদ্ধান্তে হতাশ আবাহনীর ম্যানেজার সত্যজিৎ দাস রুপু। তিনি বলেন, ‘আমরা ৫ থেকে ৭ মে ঢাকায় ম্যাচ আয়োজনের কথা বলেছিলাম। এমনকি মালদ্বীপে গিয়েও খেলার কথা জানিয়েছিলাম। কিন্তু কেন তারা (এএফসি) এমন সিদ্ধান্ত ওয়েবসাইটে দিল তা আমার বোধগম্য নয়। এখনো আমরা এএফসি থেকে কোন চিঠি পাইনি। তাই আনুষ্ঠানিকভাবে কিছুই বলতে পারছি না।’ এএফসির প্লে-অফ থেকে আবাহনীকে বাদ দেয়া দুর্বল কুটনৈতিক তৎপরতারই বহিপ্রকাশ। কারণ বাফুফে ও আবাহনী বারবার বলে আসছিল মালদ্বীপের ক্লাব বাছাই পর্বের ম্যাচ আয়োজন করতে রাজি নয়। কিন্তু এএফসির ওয়েবসাইটে উল্লেখ করেছে ব্যাঙ্গালুরু ও ঈগলস ক্লাবের ম্যাচটি ১১ মে অনুষ্ঠিত হবে মালদ্বীপের রাজধানী মালেতে।

আবাহনী লিমিটেডের ভারপ্রাপ্ত ডাইরেক্টর ইনচার্জ কাজী নাবিল আহমেদ নিজেদের অবস্থান ব্যাখ্যা করতে গিয়ে বলেন, ‘আমরা নিজেদের নাম এএফসি কাপ থেকে প্রত্যাহার করিনি। এএফসিই সেভাবে বিবেচনা করেছে। আমরা মালদ্বীপে গিয়ে খেলতে চেয়েছিলাম, কিন্তু তারা রাজি হয়নি। এছাড়া তারা এখানেও আসতে সম্মতি দেয়নি। এই পরিস্থিতিতে এমন সিদ্ধান্তকে অন্যায্য মনে করি।’

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন