ঢাকা শুক্রবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০ আশ্বিন ১৪২৭, ০৭ সফর ১৪৪২ হিজরী

সাহিত্য

এ সপ্তাহের কবিতা

| প্রকাশের সময় : ১৭ মে, ২০১৯, ১২:০৫ এএম

রহমান মাজিদ
ইচ্ছার সাবমেরিন

অভাবের মরুভূমিতে
আশার যে চারা রোপন করেছিল মা
এখন তা অল্প ছায়া দানে সক্ষম
যদিও তা উপরোতে বারবার উদ্যত হয়েছে
আব্বার গরিবী হাত
দূর নীলিমায় অস্পষ্ট আলোর ঝিলিক
মিটি মিটি তারার আংশিক ক্ষীণ শিখা
সূর্যের দীপ্তি হয়ে ধরা পড়েছিল
এই গ্রামীণ গৃহিনীর স্বপ্নীল চোখে
তাই কষ্টের লোনা দরিয়ায়
ইচ্ছার সাবমেরিনে তরঙ্গ সমুদ্র পাড়ি দিতে
পিছপা হন নাই তিনি
হতাশার কাল মেঘ বদলাতে পারে নাই
তার শৈল্পিক ইচ্ছার সরল কক্ষপথ
অবশ্য ইচ্ছেগুলো খুবই অমানবিক ছিল তখন
দুজনকেই নাচিয়েছে আপন ঢঙে
আব্বাকে নাচিয়েছে নগদ প্রাপ্তির তড়িৎ বাসনায়
আর মা-কে ভবিষ্যতের স্বপ্ন বুনতে
শেষে মা-ই জয়ী।

এস এম রাকিব
মাতা নামা

তোমার চরণ ছুঁয়ে যাবো
ওই রঙ্গ মঞ্চে মাগো
আমায় দোয়া কর তুমি
তোমার হৃদয়টা যাই চুমি,
আশা দিয়ে স্বপ্ন দিয়ে
তোমায় ভরে দেবো
তোমার আঁচল থেকে ভালোবাসার
মুক্তো কেঁড়ে নেবো। তোমার নয়ন জুড়ে মাগো
কেন ঝর্ণা বয়ে যায়?
কেন ভালোবাসার শিশির তোমার
চরণ ছুঁয়ে যায়? আমায় বলছ নাযে মাগো
তুমি জাগো খোকা জাগো।

সারোয়ার আলম
বিলাপ

পোলাডারে একলা থুইয়া নাইয়ুর গেলো মায়ে,
জম দূতেরই নিমন্ত্রণে না ফেরার ঐ গাঁয়ে
শত পীড়ন সহে মাগো সংসারেরই দায়ে,
পরাণ ভিক্ষায় মাথা ঠুকলো জমদূতেরই পায়ে
বিধির বিধান খন্ডানো দায় নোনতা জলের নায়ে
পোলাডারে একলা থুইয়া নাইয়র গেলো মায়ে!

মাটিতে ভয় পিপড়ে খাবে মাথায় আছে উকুন
পুত্র পুত্রীর কষ্টে জ্বলে মাতৃ মনের উঁনুন
ঠকঠকানো পৌষের রাতে ভেজা কাঁথার শীতে
মাতৃ যতেœর খামতি হয়নি স্নেহ গাঁথা প্রীতে
ছোট্ট সোনা খেলতো যখন কাগজি নাও বায়ে
পোলাডারে একলা থুইয়া নাইয়র গেলো মায়ে।

পোলাডারে সঙ্গে নিতে মা যে কেনো খুঁজলো না
পাষাণ হৃদয় কেমনে বান্দুম বুঝেও প্রভু বুঝলো না!
শেষ খাটিয়ায় মায়ের সাথে কেনো ওকে তুললে না
দয়াল তুমি এতো নিষ্ঠুর ওর আকুতি শোনলে না!
মাতৃ হারা পুত্রের বিলাপ সহে কি তাঁর গায়ে
পোলাডারে একলা থুইয়া নাইয়র গেলো মায়ে!

এতিমের ধন লুপাটে মন ধ্যান গ্রস্থ পড়শী
স্ত্রী বিয়োগে কাতর বাবা গিলে নিকার বড়শী!
অসৎ ছায়া জেঁকে বসে সৎ মুখোশের গর্দানে
শনির দশা লেগেই আছে মায়ের অন্তর্ধানে!
শাঁখের করাত পোলার বাবা পরছে ভীষণ দায়ে
পোলাডারে একলা থুইয়া নাইয়র গেলো মায়ে।

 

Thank you for your decesion. Show Result
সর্বমোট মন্তব্য (1)
Tarek Al Muntasir ১২ মার্চ, ২০২০, ১১:১১ এএম says : 0
অসাধারণত্ব বিরাজ করছে কবিতায়।
Total Reply(0)

এ সংক্রান্ত আরও খবর

মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন